দেশ 

রাহুল গান্ধীকে নিয়ে কুরুচিকর মন্তব্যের জেরে বিজেপির আইটি সেলের প্রধানের বিরুদ্ধে এফ আই আর দায়ের, যেকোনো সময় গ্রেফতার হতে পারেন অমিত মালবীয়া

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধীকে নিয়ে আপত্তিকর টুইট নিয়ে বিজেপি দলের মুখপাত্র অমিত মালবীয়ার বিরুদ্ধে এবার বেঙ্গালুরু পুলিশে এফআইআর দায়ের করলেন এক কংগ্রেস নেতা। আর এই এফআইআরকে কেন্দ্র করে বিজেপি কংগ্রেস সরকারের বিরুদ্ধে প্রতিহিংসামূলক আচরণের অভিযোগ এনেছে তবে কংগ্রেস নেতারা দাবি করেছে আইন আইনের পথে চলবে।

গত ১৭ জুন মালবীয় একটি টুইটে লেখেন, ‘‘রাহুল গান্ধী ভয়ঙ্কর এবং একটি কপট খেলা খেলছেন…’’। এই টুইট দেখে আপত্তি জানিয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন কংগ্রেসের প্রাক্তন বিধায়ক রমেশ বাবু। তার পরেই বেঙ্গালুরু পুলিশ এফআইআর দায়ের করে বিজেপি নেতার বিরুদ্ধে।

বিজেপি নেতার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের হওয়ার পর প্রত্যাশিত ভাবেই সরব হয়েছেন অন্যান্য বিজেপি নেতারা। সাংসদ তথা যুব মোর্চার প্রধান তেজস্বী সূর্য টুইট করে দাবি করেছেন, এই এফআইআর সিদ্দারামাইয়া সরকারের প্রতিহিংসামূলক রাজনীতির জ্বলন্ত প্রমাণ। তেজস্বীর দাবি, যে যে ধারায় এফআইআর করা হয়েছে তা একেবারেই ঠিক নয়।

সঙ্গে সঙ্গে তার পাল্টা জবাব দিয়েছে কংগ্রেস। কর্নাটকের মন্ত্রী প্রিয়াঙ্ক খড়্গের দাবি, বিজেপি যখনই আইনের মুখে এসে পড়ে, তখনই কান্নাকাটি জুড়ে দেয়! তিনি বলেন, ‘‘বিজেপি যখনই আইনের প্যাঁচে পড়ে যায়, চোখ ফেটে জল আসে। কান্নাকাটি শুরু হয়ে যায়। সমস্যা হল, ওরা আইন মানে না। আমি বিজেপিকে প্রশ্ন করতে চাই, আচ্ছা বলুন তো, এফআইআরে কোন অংশটি আপনাদের রাজনৈতিক প্রতিহিংসা মনে হচ্ছে? আমরা কিন্তু যথাযথ আইনি পরামর্শ নেওয়ার পরেই অভিযোগ দায়ের করেছি।’’

রাহুল গান্ধীকে নিয়ে কুরুচি করা যে, মন্তব্য করা হয়েছে তার পরিপ্রেক্ষিতে যে মামলা দায়ের হয়েছে এই মামলার জন্য যেকোনো সময় অমিত মালবীয়া গ্রেফতার হতে পারেন। অথচ বিরোধী দলের নেতারা যখনই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি কিংবা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ অথবা বিজেপি দলের কোন নেতার বিরুদ্ধে মন্তব্য করেছেন। সেই তখনই দেখা গেছে এফ আই এর দায়ের করে সেই নেতাকে জেলে ঢোকানোর ব্যবস্থা করেছে বিজেপি।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ