কলকাতা 

রাজ্যে মহিলাদের নিরাপত্তা নেই ; অবস্থা খুবই করুণ ; নারী পাচারে এই রাজ্য প্রথম সারিতে ; রাজ্য প্রশাসন জাতীয় মহিলা কমিশনকে সহযোগিতা করে না বিস্ফোরক দাবি চেয়ারম্যানের

শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : সংবাদ সংস্থা ইনাডু বাংলাকে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে মহিলা কমিশনের জাতীয় চেয়ারম্যান রেখা শর্মা পশ্চিমবাংলার নারীদের অবস্থা খুবই করুন বলে মন্তব্য করেছেন। তিনি বলেন ,”জেলায় জেলায় মহিলাদের কী অবস্থা তা আপনারা না দেখলে বিশ্বাস করবেন না। যে রাজ্যে মহিলা মুখ্যমন্ত্রী রয়েছেন সেখানে মহিলাদের এই অবস্থা ভাবা যায় না। এটা শুনে বুঝতে পারবেন না। দেখে বুঝতে পারবেন। আমাকে কেউ জবাবও দেয় না। আমি মুখ্যমন্ত্রীর বিষয়ে কোনও কথা বলতে চাই না। অফিসারদের থেকে জবাব চাই। ওঁরা দিতে পারেন না। গতবার নদিয়াতেও একই অবস্থা হয়েছিল। পুলিশ অফিসাররা পরে বলেন, “ম্যাডাম উপর থেকে অর্ডার এসেছিল।” আমি জানি না, উপরে কারা আছে। হয়ত ভগবান ওঁদের নির্দেশ দেন।” নারীপাচার রুখতেও পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলেন রেখা। বলেন, “পুলিশ আধিকারিকদের সঙ্গে দেখা করব। সবথেকে বেশি নারীপাচার হচ্ছে বাংলা থেকেই। চা বাগান এলাকা থেকে নারীপাচার সবথেকে বেশি হচ্ছে। আমি কেন্দ্রে রিপোর্ট পাঠিয়েছি।”

নদীয়া জেলায় এক বিজেপি সমর্থকের জাকে মারধোর করা হয়েছিল বলে অভিযোগ ওঠে । এনিয়ে জাতীয় মহিলা কমিশন রিপোর্ট চেয়ে পাঠায় । কিন্ত পুলিশ রিপোর্ট পাঠায়নি বলে কমিশনের অভিযোগ । এ প্রসঙ্গে রেখা শর্মা ওই সংবাদ সংস্থাকে বলেছেন, “পুলিশ আমাদের রিপোর্ট পাঠায় না। জবাবও দেয় না। সিনিয়র অফিসারকে ডাকি। জুনিয়র অফিসারকে পাঠায়। গত নির্বাচনের আগে মহিলাদের উপর অত্যাচার হয়েছিল। আমি এসেছিলাম। রিপোর্ট পাঠিয়েছিলাম। আটমাস পর জবাব পেয়েছি। পুলিশের আধিকারিকরা নিজেদের কাজে ব্যস্ত। আমাদের সময় দেন না। আমি বুঝতে পারি না পুলিশ এখানে কাজটা কী করে ? আমলারা কী করছেন ?” আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে মহিলাদের নিরাপত্তা নিয়ে ভাবার কথা বলেছেন চেয়ারপার্সন। বলেন, “মহিলা প্রার্থীরা যাতে নির্বাচনে দাঁড়াতে পারে তা নিশ্চিত করতে হবে। এটা সরকারেরই কাজ।”

 


শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment