জেলা 

Bogtui Case: ৯০ দিনের মাথায় বগটুই-হত্যাকাণ্ডে আনারুল সহ ১৮ জনের নামে চার্জশিট দিল সিবিআই

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : আজ সোমবার রামপুরহাট আদালতে বগটুই-কাণ্ডে প্রথম চার্জশিট পেশ করল সিবিআই।বীরভূমের বগটুইয়ে তৃণমূলের উপপ্রধান ভাদু শেখ খুনের মামলা ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় সিলবন্ধ খামে চার্জশিট পেশ করেছে সিবিআই। প্রায় ৯০ দিনের মাথায় চার্জশিট পেশ করা হল।

উল্লেখ্য, গত ২১ মার্চ বড়শাল গ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান ভাদু শেখ খুনের পরে একের পর এক বাড়িতে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। তদন্তে ২২ মার্চ রাজ্য সরকার সিট গঠন করার পরে ২২ জনের নাম উল্লেখ করে ঘটনায় জড়িত আরও ৭০- ৮০ জনের বিরুদ্ধে মামলা শুরু হয়। ২২ মার্চ ২০ জনকে গ্রেফতারও করা হয়।

২৪ মার্চ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে তৃণমূল নেতা আনারুল হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়। ২৫ মার্চ উচ্চ আদালতের নির্দেশে বগটুই গণহত্যা-কাণ্ডের তদন্তভার সিবিআই গ্রহণ করে। সিবিআই-এর আইজি অখিলেশকুমার সিংহের নেতৃত্বে বগটুই গ্রামে তদন্ত শুরু করে কেন্দ্রীয় সংস্থা। তখন আগুনে পোড়া বাড়িগুলি থেকে নমুনা সংগ্রহ করা হয়। ঘটনাস্থলের ছবি, ভিডিয়োগ্রাফি, ম্যাপ, স্কেচ শুরু করে এফএসএল টিম। টোটো ও মোটরবাইকে জ্বালানি ও বোমা বহন করার অভিযোগে বগটুই সংলগ্ন কুমাড্ডা গ্রামে তিনটি টোটো ও একটি বাইকও নজরে ছিল সিবিআই আধিকারিকদের।

মূল অভিযুক্ত লালন শেখের বাড়িতেও তল্লাশি চালায় তদন্তকারী দল। পরে সিবিআই মুম্বই থেকে চার জন এবং বগটুই থেকে দু’জনকে গ্রেফতার করে। এখনও পর্যন্ত বগটুই গণহত্যা-কাণ্ডে ২৭ জন গ্রেফতার হয়েছে। তাদের মধ্যে দু’জন নাবালক জামিনে রয়েছে।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ