জেলা 

সাগরে একগুচ্ছ উন্নয়নমূলক প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন সুন্দরবন উন্নয়ন পষর্দের চেয়ারম্যান বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি : মঙ্গলবার দক্ষিণ চব্বিশ  পরগনা সাগর ব্লকে পূর্ত দপ্তর ও জনস্বাস্থ্য  কারিগরি দপ্তরের উদ্যোগে বিয়াল্লিশ  কোটি বিয়াল্লিশ লক্ষ টাকায় রাস্তা, জলাধার, পাট্টা প্রদান, অনলাইন ব্যাঙ্কিং পরিষেবার উদ্বোধন করলেন সুন্দরবন উন্নয়ন পর্ষদের চেয়ারম্যান বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা l উপস্থিত ছিলেন সাগর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি রাজেন্দ্রনাথখাঁড়া,বিভাগীয় দপ্তরের কর্মাধ্যক্ষ, পূর্ত দপ্তরের পদস্থকর্তা  ও জন স্বাস্থ্য দপ্তরের পদস্থ কর্তারা উপস্থিত ছিলেন l  সাগর বিধায়ক বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা বলেন, চৌত্রিশ  কোটি টাকা ব্যয়ে মায়াগোয়ালিনী ঘাট থেকে হরিপদ  বাগুলি নয় কিলোমিটার পর্যন্ত রাস্তা l এদিকে চন্ডিপুর থেকে মাদার টেরিজা পাঁচ কিলোমিটার রাস্তা জন্য আট  কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে পূর্ত দপ্তর l
পাশাপাশি নয়টি জলের জলাধার, আদিবাসী ও ঘোড়ামারা দ্বীপের বাসিন্দাদের জন্য পাট্টা প্রদান করা হয় l কৃষ্ণনগর সমবায় সমিতি ও বিষ্ণুপুর সমবায় সমিতি যৌথ উদ্যোগে অনলাইন ব্যাঙ্কিং পরিষেবা চালু হয় l সুন্দরবন উন্নয়ন পর্ষদের চেয়ারম্যান বঙ্কিমচন্দ্র হাজরা রিজিওনাল ম্যানেজার সুভাষ মন্ডল ও সমবায় ব্যাংকের পদস্থ কর্তারা উপস্থিত ছিলেন l সাগর বিধায়ক বঙ্কিমচন্দ্র হাজরাএ  দিন বলেন, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর সমস্ত উন্নয়ন প্রকল্প সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দেয়ার দায়িত্ব আমাদের দিয়েছেন l আমরা সেভাবেই সাধারণ মানুষের কাছে সমস্ত পরিষেবা পৌঁছে দিচ্ছি l
সাধারণ মানুষ পরিষেবা পেলে আমরা সব থেকে বেশি খুশি হব l সাগরদ্বীপের বুকে অনলাইন ব্যাঙ্কিং পরিষেবা চালু হয় সাগরের বহু মানুষ উপকার পাবে l তারা জানতে পারবে তাদের একাউন্টে কত টাকা রয়েছে  তারা বিভিন্নজায়গায় টাকা পাঠাতে পারবে l সাগরদ্বীপের বুকে এটা একটা নতুন দিগন্ত, নতুন দিশারী l এদিকে সাগর বিডি অফিস থেকে ঘোড়ামারা দ্বীপ ও আদিবাসীদের একশো দশজন পাট্টা পাওয়ায় খুশি l বিচ্ছিন্ন ঘোড়ামারা দ্বীপের বহু মানুষ আতঙ্কের মধ্যে দিন কাটাচ্ছিলেন l রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে তাদের কে অন্যত্র থাকা ব্যবস্থা করা হয় l আজকের নতুন ভাবে তাঁরা পাট্টা পাওয়ায় খুশি l

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment