দেশ 

পিটিয়ে মারার ঘটনাকে ‘ সাজানো ও ভূয়ো ‘ অভিযোগ বলে সাফাই দিলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মুখতার আব্বাস নকভী

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যে মব লিনচিং-র ঘটনা ঘটছে তা আসলে সাজানো ঘটনা । বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই ভূয়ো অভিযোগ বলে মন্তব্য কেন্দ্রের সংখ্যালঘু উন্নয়ন মন্ত্রী মুখতার আব্বাস নকভী ।

গত শুক্রবার বিহারের বানিয়াপুরে গরুচোর সন্দেহে উপজাতি সম্প্রদায়ের দুজন এবং এক মুসলিম যুবককে পিটিয়ে মেরে ফেলে একদল মানুষ। তা নিয়ে দেশজুড়ে সমালোচনার ঝড় বয়ে যায় । এমনকি সমাজবাদী পার্টির নেতা আজম খান ক্ষোভের সঙ্গে বলেছেন , দেশভাগের সময় আমাদের পূর্বপরুষরা মৌলানা আজাদ , জওহরলাল নেহেরু সর্দার বল্লভভাই প্যাটেল , মহাত্মা গান্ধী এদেশের মুসলমানদের নিরাপত্তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন । কিন্ত তা সত্ত্বে আজও আমরা মাথা উচুঁ করে বাস করতে পারছি না ।

আজম খাঁনের এই বক্তব্যের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে বিজেপি নেতা মুখতার আব্বাস নকভী বলেন,গণপিটুনির অভিযোগ সাজানো এবং মিথ্যা ঘটনা

এদিকে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার তাঁর সংযুক্ত জনতা দল বিজেপির শরিক। বানিয়ালের ঘটনায় কড়া অবস্থান নিতে দেখা যায়নি তাঁকেও। বরং এই ঘটনাকে গণপিটুনির জেরে মৃত্যু না বলার পক্ষপাতী তিনি। তাঁর কথায়, ‘‘গরু চুরি করতে গিয়ে যেহেতু ধরা পড়েছিল, তাই এই ঘটনাকে গণপিটুনির জেরে মৃত্যু বলা উচিত নয়।’’ কিন্তু যদি সে রকম কিছু ঘটেও থাকে, ভাবে পিটিয়ে খুন করা কতটা যুক্তিযুক্ত? এই প্রশ্নের জবাব সযত্নে এড়িয়ে যান তিনি।

যদিও এক সপ্তাহ আগেই মুখতার আব্বাস নকভী বলেছিলেন , জোর জয় শ্রীরাম বলানো উচিত নয় । আর জয় শ্রীরাম বলানোর জন্য মারধোর করাও অনুচিত । এক সপ্তাহ পরেই ভোল পাল্টে ফেললেন নকভী ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment