কলকাতা 

ব্ল্যাকমানি ফেরত দাও একুশে জুলাইয়ের মঞ্চ থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিজেপি বধে নয়া স্লোগান ; কর্মীদের এই দাবিতে আন্দোলনে নামার আহ্বান দলনেত্রীর

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : একুশে জুলাইয়ের শহীদ দিবসের মঞ্চ থেকে রবিবার বারবেলায় বিজেপির বিরুদ্ধে আবার সুর চড়া করলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় । তিনি এদিন বলেন , কাটমানি নিয়ে বিজেপির কথা বলার অধিকার নেই । যে দল ব্ল্যাকমানি খরচ করে ক্ষমতায় এসেছে সেই দলের কথা বলার অধিকার নেই । চোরের মায়ের বড় গলা । এবার আমরা ব্ল্যাকমানি ফেরতের দাবিতে আন্দোলনে নামব ।

তৃণমূল নেত্রীর দাবি, ‘সরকারি প্রকল্পে যাতে প্রত্যেকের কাছে সুষ্ঠু ভাবে পৌঁছয়, সেজন্য মহৎ উদ্দেশ্য নিয়েই তার উপর নজরদারির কথা বলা হয়েছিল। কিন্তু, রাজনৈতিক স্বার্থপূরণ করতে বিজেপি কাটমানি ফেরতের দাবি তুলেছে।’ কাটমানির পাল্টা হিসেবে বিজেপির বিরুদ্ধে ব্ল্যাকমানি ফেরতের দাবিতে আন্দোলন শুরুর হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। এজন্য দলীয় কর্মীদের আন্দোলন শুরুর নির্দেশও দিয়েছেন তিনি।

উজালার কাটমানির হিসেবেও চেয়ে তৃণমূলকর্মীদের রাস্তায় নামার নির্দেশ দিয়েছেন তৃণমূল নেত্রী। জনসভা থেকে মমতার অভিযোগ, ‘‘গত লোকসভা নির্বাচনে হিসেব বহির্ভূত টাকা খরচ করেছে বিজেপি। বিদেশ থেকেও টাকা সাহায্য পেয়েছে তারা।’’ সেই টাকার হিসেব দেওয়ার দাবিও তুলেছেন মমতা। দলীয় কর্মীদেরও কড়া বার্তা দিলেন তৃণমূল নেত্রী। কর্মীদের রাস্তায় নামার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। সমাবেশ মঞ্চ থেকে তিনি বলেন, ‘‘ঘরে বসে কখনই রাজনীতি করা যাবে না। রাস্তাই আমাদের রাস্তা দেখাবে।’’

আসলে কাটমানি ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অনেকটাই ব্যাকফুটে চলে গেছেন । কারণ রাজ্যজুড়ে কাটমানি ইস্যুতে তৃণমূলের জেলার নেতারা বিশেষ করে পঞ্চায়েত স্তরের নেতারা সাধারন মানুষের কাছে ভিলেনে পরিণত হয়ে গেছে । এই অবস্থায় কাটমানি ইস্যুকে সামাল দেওয়ার জন্য তৃণমূল ব্ল্যাকমানি ফেরত দাও আন্দোলন কতটা দানা বাধবে তা নিয়ে সন্দেহ আছে ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment