দেশ 

প্রিয়াংকার ম্যাজিকে দেশজুড়ে কংগ্রেসের পালে হাওয়া উঠেছে , মোদীর বিজয় রথ থামাতে বারাণসীতে কংগ্রেস প্রার্থী প্রিয়াংকা গান্ধী !

শেয়ার করুন
  • 64
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : কংগ্রেসের পালে হাওয়া উঠেছে দেশজুড়েই । এ বছর ফেব্রূয়ারি মাসে কংগ্রেসের নেত্রী হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে দায়িত্ব নেওয়ার পরেই নাকি দেশজুড়ে কংগ্রেসের সদস্য সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বেড়েছে । শুধু তাই নয় উত্তরপ্রদেশে আগামী দিনে প্রিয়াংকা গান্ধী যে কংগ্রেসের হারানো জমি ফিরিয়ে আনতে চলেছেন তা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই । প্রিয়াংকাকে মূলত উত্তরপ্রদেশে সাংগঠনিকভাবে কংগ্রেসকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে রাহুল গান্ধী দায়িত্ব দিয়েছিলেন । তিনি সেই দায়িত্ব শুধু পালনই করেননি , সেই শক্তি সারা দেশে কংগ্রেসের মহিলা সদস্য সংখ্যাও দ্বিগুন বেড়েছে । মনে করা হচ্ছে প্রিয়াংকা ম্যাজিকেই কংগ্রেসের জনপ্রিয়তা হুহু করে বাড়ছে । আর এভাবে প্রিয়াংকার জনপ্রিয়তা বাড়ছে দেখে বিরোধীরা শংকিত । তারা নানাভাবে প্রিয়াংকাকে অপদস্থ করে চলেছে । কিন্ত প্রিয়াংকা গান্ধী লক্ষ্যে স্থির থেকে নিরবে কাজ করে যাচ্ছেন ।

কংগ্রেস সুত্রে পাওয়া খবরে জানা যাচ্ছে মাত্র দু-মাসে ২২ শতাংশ সদস্য বেড়েছে। শুধু সদস্য বাড়াই নয়, মহিলারা এগিয়ে আসছেন সক্রিয় রাজনীতিতে। এক্ষেত্রেও নজরকাড়া সাফল্য বয়ে এনেছেন প্রিয়াংকা। দাদা রাহুল উত্তরপ্রদেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের দায়িত্ব দিয়েছেন। কিন্তু রাজীব-তনয়া রাজনীতিতে নামতেই সাড়া পড়েছে দেশব্যাপী।

রাজীব কন্যা উত্তরপ্রদেশে সাধারণ সম্পাদকের চেয়ারে বসার পর কংগ্রেসের শক্তি নেটওয়ার্কের সদস্য সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। তাঁর সক্রিয় রাজনীতিতে প্রবেশের আগে কংগ্রেসের শক্তি নেটওয়ার্কের সদস্য সংখ্যা ছিল ৫৪ লক্ষ। এই দু-মাসের মধ্যে তা বেড়ে হয়েছে ৬৬ লক্ষ।
এই নেটওয়ার্কে মহিলাদের অন্তর্ভূক্তি ছিল নগন্য। প্রিয়াংকার আগমনে মহিলাদের উপস্থিতিও বাড়ছে। এতদিন ছিল ২২ শতাংশ মহিলা সদস্য। প্রিয়াংকার আসার পর দুমাসে সদস্য সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৪০ শতাংশ। অর্থাৎ প্রায় দ্বিগুণ হয়েছে সদস্য সংখ্যা।
এমনকি  উত্তরপ্রদেশে বুথস্তরেও কর্মীর সংখ্যা বেড়েছে। উত্তরপ্রদেশের বুথস্তরে কর্মীর সংখ্যা আগে ছিল দেড় লক্ষ। প্রিয়াংকা দায়িত্ব নেওয়ার পর তা একলাফে সেই সংখ্যা পৌঁছেছে  সাড়ে তিন লাখে । লোকসভা ভোটের আগে যা নতুন করে স্বপ্ন দেখাচ্ছে বলে কংগ্রেসের তরফে জানানো হয়েছে। রাহুলও খুশি প্রিয়াংকার উপস্থিতিতে অভূতপূর্ব সাফল্যের পর।

শুধু উত্তরপ্রদেশেই নয়, ভিন রাজ্যেও প্রিয়াংকার প্রতি আস্থা লক্ষ্য করা যাচ্ছে । ভিনরাজ্যেও কংগ্রেস অক্সিজেন পাচ্ছে বাড়ছে কর্মীর সংখ্যা। দক্ষিণের তামিলনাড়ুতেও কংগ্রেস আগের থেকে অনেক শক্তিশালী হয়েছে এই দুমাসে। কেরলেও সদস্য বাড়ছে কংগ্রেসের। ফলে আরও ভালো ফলের আশা করছে কংগ্রেস।

এদিকে বারাণসীতে মোদীর বিরুদ্ধে কংগ্রেস প্রার্থী করতে পারেন প্রিয়াংকাকে । তাতে মোদীর জয় কঠিন হয়ে যাবে বলে মনে করছে কংগ্রেস নেতারা । প্রিয়াংকা বারাণসীতে ভোটে দাঁড়ালে মোদীকে তাঁর কেন্দ্রে অনেকটা ধরে রাখা যাবে । কারণ মোদী বুঝতে পারছেন প্রিয়াংকার জনপ্রিয়তা যেভাবে বেড়ে চলেছে তাতে বারাণসীতে তাঁকে বেগে দিতে পারেন প্রিয়াংকা । আর প্রিয়াংকার কাছে মোদী হেরে যান তাহলে সমগ্র দেশজুড়ে কংগ্রেসের উত্থানকে আটকানো সম্ভব হবে না ।


শেয়ার করুন
  • 64
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment