জেলা 

মানুষের দাবিপূরণ করা জনপ্রতিনিধিদের একান্ত কর্তব্য : এ কে এম ফারহাদ

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিশেষ প্রতিনিধি , হাড়োয়া :  পশ্চিমবঙ্গের অর্থনীতির চালিকাশক্তি কৃষিকাজ হলেও পিছিয়ে নেই জলাভূমি প্রবণ বাংলার মাছ চাষও।রাজ্যের অন্যতম মৎস্য আড়ৎ উঃ ২৪ পরগনা জেলার হাড়োয়া বিধানসভা এলাকার বারাসাত -২ নং ব্লকের কীত্তিপুর -২ নং পঞ্চায়েতের খড়িবাড়ি মৎস্য বাজার। স্থানীয় মানুষের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল বাজার সংলগ্ন এলাকায় জল নিকাশি ব্যবস্থা দ্রুত সমাধানের। মানুষের দাবিকে মান্যতা দিয়ে এগিয়ে এলো স্থানীয় ৩৮ নং জেলা পরিষদের সদস্য বন ও ভূমি স্থায়ী সমিতির কর্মাধ্যক্ষ একেএম ফারহাদ। মঙ্গলবার জেলা প্রশাসন ও ব্লক নেতৃত্বদের সঙ্গে নিয়ে সম্পূর্ণভাবে মৎস্য বাজার সহ পুরো এলাকা পরিদর্শন করা হয়। উল্লেখ্য খড়িবাড়ি এলাকার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া বিদ্যাধরি নদী জল নিকাশের একমাত্র পথ।

২১১ রোডের উপর ছোটখাল ব্রিজের উপর নির্মিত ব্রিজের জন্য জলনিকাশের সমস্যার ফলেই বছরের বেশিরভাগ সময় মাছ বাজারসহ এলাকায় জল থৈ থৈ করে বলে স্থানীয় মানুষের অভিযোগ। ডেঙ্গু সহ অন্যান্য রোগের প্রার্দূভাব থেকে রক্ষা পেতে দ্রুত জল নিষ্কাশনের জন্য উদ্যোগী হতে দেখা যায় কর্মাধ্যক্ষ একেএম ফরহাদকে। বছরভর যাকে মানুষের পাশে থেকে কাজ করতে দেখা যায় সেই ফারহাদ বলেন মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী শ্রীমতি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় তৃণমূল স্তর থেকে মানুষের সঙ্গে জনসংযোগের মধ্যে দিয়ে কাজ করতে পারলে খুব ভালো লাগে। খড়িবাড়ি মৎস্য বাজার রাজ্য তথা দেশের মৎস্য রপ্তানির ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা বহন করে চলে।যার ফলেই আয়ের একটা বড় উৎস মৎস্য চাষীদের কাছে।

Advertisement

স্থানীয় মানুষের দীর্ঘদিনের দাবীর মতো যত দ্রুত সম্ভব জলনিকাশের বন্দোবস্ত করতে প্রশাসনের আধিকারিকরা তৎপরতার সঙ্গে যত দ্রুত সমস্যা সমাধানে কাজ শুরু হবে। মানুষের পরিষেবা দেওয়াই আমাদের একান্ত কর্তব্য বলে কাজের মানুষ ফারহাদ জানায়।পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি মনোয়ারা বিবি বলেন মানুষের পরিষেবা দেওয়াই আমাদের কাজ তাকে ত্বরান্বিত করতে সকলের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে। সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক শেখর সেন এর কথায় বিভিন্ন বিভাগের আধিকারিকদের সম্বন্বয়ে বৃহত্তর মানুষের স্বার্থে জনকল্যাণমূলক কাজ করা হবে। খড়িবাড়ি মৎস্য বাজারে দৈনিক প্রচুর সংখ্যক মানুষের আমদানি হয়ে থাকে।

তাই যত দ্রুত সম্ভব সমস্যার সমাধানে এলাকার মানুষের সদর্থক দৃষ্টিভঙ্গি রাখতে হবে। উক্ত কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন জেলা ইঞ্জিনিয়ার অরিন্দম বাবু, ডিস্ট্রিক্ট স্যানিটারি কো অর্ডিনেটর সুমন বাবু,পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ মান্নান আলি, সাহাবুদ্দিন আলি,বিশিষ্ট সমাজকর্মী হাজী দাউদ আলি,হাজী সামসুজ্জামান(রাজু), আব্দুর রউপ,মেসবাহউদ্দীন,খড়িবাড়ি মৎস্য বাজার কমিটির সম্পাদক সফিকুল ইসলাম বাচ্চু, স্থানীয় প্রধান তৃষ্ণা পাত্র, পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য হাফিজুল ইসলাম,ব্লক আধিকারিক শঙ্কর বাবু,সদস্য প্রসেনজিৎ, নাজিবুল প্রমুখ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ