কলকাতা 

২৪ ঘন্টার মধ্যে এসএসসি নবম-দশমের মেধা তালিকা প্রকাশ না করলে জেলে যাবেন সচিব নির্দেশ কলকাতা হাইকোর্টের

শেয়ার করুন
  • 6
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক: ২৪ ঘণ্টার মধ্যে স্কুল সার্ভিস কমিশনের (এসএসসি) নবম এবং দশম শ্রেণির নিয়োগ পরীক্ষায় মেধাতালিকা প্রকাশ না করলে কমিশনের সচিবকে জেলে পাঠানো হবে। সোমবার আদালত অবমাননার মামলায় হাইকোর্টে হাজিরা দিয়ে বিচারপতি রাজশেখর মান্থার তীব্র ভর্ৎসনা ও কটাক্ষের মুখে পড়লেন এসএসসির সচিব অশোক সাহা।

২০১৬ সালে এসএসসির নবম ও দশম শ্রেণির নিয়োগ পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয় ২০১৮ সালের মার্চে। প্রার্থীদের একাংশের অভিযোগ, ওই পরীক্ষার মেধাতালিকা প্রকাশ না করে সরাসরি প্যানেল প্রকাশ করা হয় যা আইনত অবৈধ। মেধাতালিকা প্রকাশের দাবিতে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন চাকরিপ্রার্থীরা। গত বছর ১৮ সেপ্টেম্বর এক রায়ে আদালত স্পষ্ট নির্দেশে জানায়, পরীক্ষার্থীদের দাবিমতো ৪ সপ্তাহের মধ্যে মেধাতালিকা প্রকাশ করতে হবে এসএসসিকে।

কিন্তু তার পর তিন মাসের বেশি সময় কাটলেও মেধাতালিকা প্রকাশিত হয়নি।এর পর মেধাতালিকা প্রকাশিত না হওয়ায় এসএসসির সচিবকে আদালত অবমাননার অভিযোগে তলব করেন বিচারপতি। সোমবার আদালতে হাজিরা দেন তিনি। আদালতের নির্দেশ মেনে মেধাতালিকা প্রকাশ করা হয়েছে, এটা অশোকবাবু দাবি করলেও মানতে চাননি মামলাকারীর আইনজীবী।

মামলাকারীর আইনজীবী আশিসকুমার চৌধুরি বলেন, “চাকরিপ্রার্থী মনিকা রায় ও অন্য কয়েকজন ২০১৮ সালের অগাস্টে স্কুল সার্ভিস কমিশনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। তাঁদের দাবি ছিল, মেধাতালিকা প্রকাশ না করেই কাউন্সেলিং চলছে। প্রথম শুনানি হয় সেই বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর। বিচারপতি রাজশেখর মান্থা নির্দেশ দেন স্কুল সার্ভিস কমিশনকে ২০১৬ সালের গেজেট নোটিফিকেশন মত ৪ সপ্তাহের মধ্যে মেধাতালিকা প্রকাশ করতে হবে। কিন্তু সেই নির্দেশ মানেনি স্কুল সার্ভিস কমিশন। তার জন্য আদালত অবমাননার মামলা করেন আবেদনকারীরা। সেই মামলার শুনানি হয় ২০ ডিসেম্বর ২০১৮ সালে। শুনানিতে বিচারপতি আদালত অবমাননার নোটিশ দেন সার্ভিস কমিশনকে।”

তিনি আরও বলেন, “এরপর চলতি বছরের ১৮ জানুয়ারি এই মামলার ফের শুনানি হয়। কিন্তু সেখানে সার্ভিস কমিশনের পক্ষে কেউ হাজির না থাকায় হাইকোর্টের নির্দেশকে অবমাননা করা হয়েছে বলে জানান বিচারপতি। তিনি আদালত অবমাননা রুল জারি করেন। এবং ২৮ জানুয়ারি চেয়ারম্যান ও সেক্রেটারিকে হাজির হওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন। আজ সেক্রেটারি কোর্টে হাজির হয়েছিলেন। তিনি জানান, স্কুল সার্ভিস কমিশন মেধাতালিকা প্রকাশ করেছিল। কিন্ত আজ কোনও প্রমাণপত্র দেখাতে পারেননি। তাই কোর্ট বলেছে আগামীকালের মধ্যে প্রমাণপত্র সহ একটি হলফনামা যেন স্কুল সার্ভিস কমিশন কোর্টে দাখিল করে।”

এর পরই বিচারপতির চরম ভর্ৎসনার মুখে পড়েন অশোকবাবু। মেধাতালিকা প্রকাশ করা হলেও কেন তা মামলাকারীদের জানানো হয়নি এই প্রশ্ন অশোকবাবুকে করেন বিচারপতি রাজশেখর মান্থা। এর পরেই তাঁর চরম হুঁশিয়ারি, “২৪ ঘণ্টার মধ্যে মেধাতালিকা প্রকাশ না করলে আদালত অবমাননার দায়ে আপনাকে জেলে পাঠাব।”

চাকুরিপ্রার্থীদের অভিযোগ এসএসসি নিয়োগে দুর্নীতি ঢাকতেই মেধাতালিকা প্রকাশে দেরি করছে কর্তৃপক্ষ।

 


শেয়ার করুন
  • 6
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment