আন্তর্জাতিক 

পদ্মশ্রী সম্মান বিনয়ের সঙ্গে রাজনৈতিক কারণ দেখিয়ে প্রত্যাখান করলেন বিশিষ্ট লেখিকা ও চলচ্চিত্র নির্মাতা গীতা মেহেতা

শেয়ার করুন
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : কেন্দ্র সরকারের দেওয়া পদ্মশ্রী সম্মান বিনয়ের সঙ্গে প্রত্যাখান করলেন আমোরিকা প্রবাসী ভারতীয় লেখিকা  এবং চলচ্চিত্র নির্মাতা গীতা মেহতা। শনিবার তিনি নিউ ইয়র্ক থেকে প্রেস বিবৃতি দিয়ে এই সম্মান প্রত্যাখানের কথা জানিয়েছেন । এক প্রেস বিবৃতি স্বনামধন্য লেখিকা গীতা মেহেতা বলেছেন , “পদ্মশ্রীর জন্য আমার নাম বিবেচিত হওয়ায় আমি সরকারকে সম্মান জানাচ্ছি। তবে সামনে লোকসভা ভোট। ভোটের আগে এই সম্মান গ্রহণ করলে আমার এবং সরকারের বিড়ম্বনা বাড়তে পারে। যেটা আমার কাম্য নয়। সে কারণেই আমি এই সম্মান গ্রহণ করতে পারছি না”।

অতি বিনয়ের সঙ্গে পদ্মশ্রী প্রত্যাখান করে লেখিকা গীতা মেহেতা আসলে মোদী সরকারের প্রতি অনাস্থা দেখিয়েছেন বলে পর্যবেক্ষকরা মনে করছেন ।

উল্লেখ্য ,গীতা ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েকের দিদি। স্বাভাবিক ভাবেই রাজনীতির সঙ্গে তাঁর পরোক্ষ সম্পর্ক থেকেই যায়। এ বার সাহিত্য এবং শিক্ষা বিভাগে পদ্মশ্রী প্রাপকের তালিকায় তাঁকে মনোনীত করা হয়।

রাজনীতির স্পর্শকাতর জায়গা থেকেই তিনি এই সম্মান ফিরিয়েছেন বলে প্রেস বিবৃতিতে জানিয়েছেন। যদিও ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রীকে এ বিষয়ে তিনি কোনো মন্তব্য করেননি। তবে বোনের এই সম্মানপ্রাপ্তিতে তিনি তাঁকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য,  পদ্ম সম্মান দেশের সর্বোচ্চ অসামরিক সম্মান। তিন ধরনের পদ্ম সম্মান রয়েছে। পদ্ম বিভূষণ, পদ্মভূষণ এবং পদ্মশ্রী। ২০১৯-এ দেশের ৭০তম সাধারণতন্ত্র দিবসে ১১২জনকে পদ্ম সম্মান দেওয়ার কথা জানানো হয়েছে। এর মধ্যে ৪ জন পদ্ম বিভূষণ, ১৪ জন পদ্মভূষণ এবং ৯৪ জন পদ্মশ্রী পুরস্কার পেয়েছেন। প্রাপকদের মধ্যে ২১ জন মহিলা।

পদ্ম সম্মান দেওয়া হয় সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে কাজের জন্য। মার্চ কিংবা এপ্রিলে রাষ্ট্রপতি ভবনে হওয়া অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতি প্রাপকদের হাতে এই সম্মান তুলে দেন।


শেয়ার করুন
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment