কলকাতা 

কংগ্রেসের আইন-অমান্যকে কেন্দ্র করে ধুন্ধমার আলিপুর , পুলিশ সমস্ত গনতান্ত্রিক শিষ্টাচারকে ভেঙে দিয়ে কংগ্রেস কর্মীদের সঙ্গে অমানবিক আচরণ করেছে অভিযোগ আমজাদ আলীর

শেয়ার করুন
  • 147
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : মঙ্গলবার দক্ষিণ কলকাতা জেলা কংগ্রেসের ডাকে জেলভরো আইন-অমান্য কর্মসুচিকে কেন্দ্র করে আলিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসারের বিরুদ্ধে অমানবিক আচরণের অভিযোগ করেছেন কংগ্রেস নেতা , প্রাক্তন সাংসদ ও আইনজীবী সরদার আমজাদ আলী । তিনি বাংলার জনরবকে বলেন , আজ দুপুরে আমরা আমাদের দাবি সনদ নিয়ে আলিপুরের জেলাশাসকের সঙ্গে দীপা দাসমুন্সীর নেতৃত্বে এক প্রতিনিধি দল ডেপুটেশন দিতে যান । তাঁরা ডিএম অফিসে ঢোকার সঙ্গে সঙ্গে গেট বন্ধ করে দেওয়া হয় । ঠিক সেই গেট খোলার দাবিতে কংগ্রেস কর্মীরা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে। তা নিয়ে উত্তেজনা তৈরি হয় । কিছুক্ষণ পর দীপা দাসমুন্সী ফিরে আসার পরই গন্ডগোলের সূত্রপাত হয় । ডিএম জানিয়ে দেন কংগ্রেস কর্মীদের গ্রেফতার করে তাদের মুক্তি দেওয়া হল । কিন্ত আলিপুর থানার পুলিশ অফিসারের নেতৃত্বে বেশ কয়েকজন পুলিশ এসে বিনা প্ররোচনাতে লাঠিচার্জ শুরু করে বলে অভিযোগ ।

সরদার আমজাদ আলী অভিযোগ আমাদের মহিলা কর্মীদের উপর অত্যাচার করা হয়েছে , মারধোর করা হয়েছে । মহিলা কর্মীদের আলিপুর কোর্ট লকআপে আর বাকীদের প্রথমে কোথায় নিয়ে যাওয়া হয়েছিল তা জানা যায়নি । পরে অবশ্য জানা যায় ,তাদেরকে লালবাজার সেন্ট্রাল লকআপে নিয়ে যাওয়া হয়েছে । এদিকে দীপা মুন্সীদের আবার হেস্টিংস থানায় নিয়ে যাওয়া হয় । তাঁর অভিযোগ শান্তিপূর্ন আন্দোলনে এই ধরনের পুলিশি নির্যাতন সর্ম্পূণ বেআইনি ও অগনতান্ত্রিক । এটা মেনে নেওয়া যায় না । আলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ যা করেছেন তা গনতন্ত্রের শিষ্টাচার বিরোধী এবং বেআইনি । জানা গেছে , আজকের কংগ্রেসের আইন-অমান্য আন্দোলনে কয়েক হাজার কংগ্রেস কর্মী যোগ দেয় ।


শেয়ার করুন
  • 147
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment