দেশ 

লালকেল্লা এখন ডালমিয়াদের হাতে

শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেক্স: দেশের জাতীয় স্মারক লালকেল্লার নাকি হাত বদল হয়েছে,শুনতে অবাক লাগছে তাই না? এটাই বাস্তব! বিজেপি-র আমলে সবই সম্ভব। মাত্র ২৫ কোটি টাকায়  লালকেল্লার হাত বদল হল ৫ বছরের জন্য। আর এই ঐতিহাসিক স্থাপত্যের দেখভালের দায়িত্ব পেয়েছে ডালমিয়া ভারত গ্রূপ। এখন থেকে আগামী ৫ বছরের জন্য ইতিহাস খ্যাত এই প্রতিষ্ঠানটির নাম হবে ডালমিয়া ভারত লালকেল্লা। জানা গেছে কেন্দ্রীয় সরকারের সবুজ সংকেত মোতাবেক এই জাতীয় স্মারকটির রক্ষণাবেক্ষণ ও দেখভালের জন্য বেসরকারি কোনো এক সংস্থাকে দায়িত্ব দেওয়ার চিন্তাভাবনা করে কেন্দ্রের সংস্কৃতি মন্ত্রক,আরকিওলজিক্যাল সার্ভে অফ ইন্ডিয়া। সেই মোতাবেক সরকার টেন্ডার আহ্বান করে। এই টেন্ডারে দেখা গেল ইন্ডিগো এয়ারলাইন্স এবং জি.এম গ্রূপকে হারিয়ে মাত্র ২৫ কোটি টাকার বিনিময়ে আগামী ৫ বছরের জন্য লালকেল্লার সম্পূর্ণ দায়িত্ব পেল ডালমিয়ারা।

উল্লেখ্য,সপ্তদশ শতকে মুঘল সম্রাট শাহজাহান এই স্মারকটি নির্মাণ করেছিলেন। প্রতি বছর দেশের প্রধানমন্ত্রী এখানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন এবং জাতির উদ্দেশে ভাষন দেন। সম্মান ও ঐতিহ্যের দিক থেকে এই ঐতিহাসিক স্মারকটির গুরুত্ব অপরিসীম। এরকম একটি গুরুত্বপূর্ণ স্মারককে কিনা অর্থের অভাবে বেসরকারি সংস্থার হাতে তুলে দেওয়া হল! জানা গেছে গত ৯ এপ্রিল সংস্কৃতি মন্ত্রক ও আরকিওলজিক্যাল সার্ভে অফ ইন্ডিয়ার সঙ্গে ডালমিয়া ভারত গ্রূপের মধ্যে এক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এই চুক্তি অনুসারে এবার থেকে আগামী ৫ বছরের জন্য লালকেল্লার নাম হবে ডালমিয়া ভারত লালকেল্লা। আগামী ২৩ মে আনুষ্ঠানিকভাবে ডালমিয়া গ্রূপের হাতে এই জাতীয় সম্পত্তিটি হস্তান্তর করা হবে। ওই বেসরকারি বাণিজ্যিক সংস্থাটি জানিয়েছে, চুক্তি মত তারা এবার থেকেও লালকেল্লায় ঢোকার জন্য টিকিটের হার ধার্য করবে।এছাড়া লালকেল্লাকে অর্থের বিনিময়ে ভাড়াও তারা দিতে পারবে।

মোদিজির আচ্ছা দিনের স্বপ্ন আজ সত্যি বাস্তব হয়েছে।দেশের ঐতিহাসিক সৌধকে বানিজ্যিক সংস্থাকে লীজ দিয়ে কোষাগার দেশের ভরতে হচ্ছে!বিশেষ সূত্রে জানা গেছে,৯ এপ্রিল চুক্তি হলেও তা ২৫ এপ্রিল প্রকাশ্যে আসে।


শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment