জেলা 

ধর্ষণের মামলা তুলে নিতে চাওয়ায় হুমকি বিজেপির, নিরাপত্তা চেয়ে থানায় গৃহবধূ

শেয়ার করুন

বাংলার জনরব ডেস্ক :  ধর্ষণের মিথ্যা অভিযোগ তুলে নিতে চাওয়ায় সন্দেশখালির এক গৃহবধূকে হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগের তীর বিজেপি প্রার্থী রেখা পাত্রের দিকে।গৃহবধূর পরিবারের দাবি, বিজেপির প্রার্থী রেখা পাত্র স্বয়ং গিয়ে হুমকি দিয়ে এসেছেন ওই মহিলাকে। বলা হয়েছে, অভিযোগ তুলে নিলে বিজেপি আর তাঁদের দায়িত্ব নেবে না। এই ঘটনায় আতঙ্কিত ওই মহিলা সোমবার সকালেই নিরাপত্তা চেয়ে দ্বারস্থ হয়েছেন সন্দেশখালি থানার।

রবিবার রাতে ঘটনার সূত্রপাত। সন্দেশখালির ওই গৃহবধূ জয়শ্রী (নাম পরিবর্তিত) যে ধর্ষণের অভিযোগ প্রত্যাহার করে নিতে চান, সেই খবর কোনও ভাবে ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। খবরটি চাউর হতেই বসিরহাটের বিজেপি প্রার্থী রেখা-সহ বিজেপির কর্মীরা হানা দেন তাঁদের বাড়িতে।  এ বিষয়ে প্রতাপ (নাম পরিবর্তিত) জানান, ‘‘দিদি নিরাপত্তা চাইতে সন্দেশখালি থানায় গিয়েছে। কারণ, কাল রাতে রেখা পাত্ররা এসে হুমকি দিয়ে গিয়েছে।’’ কিসের হুমকি প্রশ্ন করায় একে একে প্রকাশ্যে আসে এই থানায় যাওয়ার নেপথ্যে থাকা দীর্ঘ ঘটনাপ্রবাহ।

Advertisement

প্রতাপের অভিযোগ, সন্দেশখালিতে শিবপ্রসাদ হাজরার পোলট্রি ফার্ম জ্বালিয়ে দেওয়ার অভিযোগে পুলিশ গ্রেফতার করেছিল তাঁকে-সহ তিন জনকে। সেই সময়ে সন্দেশখালি আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তিনি। তাঁর জামিনের জন্য স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্বের কাছে দরবার করেন তাঁর দিদি সঙ্গীতা। সেই সময়েই স্থানীয় বিজেপি নেত্রী মাম্পি দাস তাঁর দিদিকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যান। পরামর্শ দেন, ‘‘আমরা এঁদের বিরুদ্ধে কেস করেছি। তুইও কর। তা হলে ভাইয়েরা ছাড়া পেয়ে যাবে। না হলে ছাড়া পাবে না। তোর ভাইয়ের কী হবে, কিছু বলতে পারছি না। তাই রেপ কেসটা কর।’’

প্রতাপের কথায়, ওই মহিলার কথাতেই তাঁর দিদি ধর্ষণের মামলা করেন। কিন্তু সম্প্রতি চতুর্দিকে ধর্ষণের অভিযোগ অস্বীকারের খবর পেয়ে হয়তো তাঁর দিদি ভয় পেয়েই ‘অসত্য অভিযোগ’ প্রত্যাহার করে নিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু সেই চেষ্টা করতেই আসে হুমকি।

প্রতাপের এই অভিযোগ প্রসঙ্গে এখনো পর্যন্ত সংবাদমাধ্যমে কোনো প্রতিক্রিয়া জানাননি বসিরহাটের বিজেপি প্রার্থী রেখা পাত্র।

অন্য দিকে, বসিরহাট পুলিশ জেলা সূত্রে খবর, সোমবার সকালে ওই মহিলা এসেছিলেন থানায়। তিনি আগে যে অভিযোগ করেছিলেন, তা প্রত্যাহার করতে চাওয়ার পাশাপাশি নিজের জন্য নিরাপত্তারও দাবি করেছিলেন তিনি। পুলিশকে তিনি জানিয়েছেন, তাঁকে বিজেপির তরফে হুমকি দেওয়া হয়েছে। তাই তিনি নিরাপত্তার অভাববোধ করছেন। এ ব্যাপারে পুলিশের কাছ থেকে সাহায্য চান তিনি। পুলিশ সূত্রে খবর, তাঁকে ব্যক্তিগত ভাবে সর্বক্ষণের নিরাপত্তা না দেওয়া হলেও তাঁর বাড়ির সামনে পুলিশি প্রহরা বসানো হয়েছে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত নিবন্ধ