জেলা 

মুহাম্মদ সেলিমের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সময় সঙ্গী হলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী

শেয়ার করুন

বাংলার জনরব ডেস্ক :  মুর্শিদাবাদে বাম কংগ্রেস জোটের ঐক্যকে প্রতিরোধ করার লক্ষ্যে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী এবং সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক মুহাম্মদ সেলিম একসঙ্গে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার কর্মসূচিতে সামিল হলেন।

বৃহস্পতিবার মুর্শিদাবাদের সিপিএম প্রার্থী সেলিমের মনোনয়ন পেশের নির্ধারিত কর্মসূচি ছিল। অধীর আগেই জানিয়েছিলেন, তিনি সেলিমের মনোনয়ন জমা দেওয়ার কর্মসূচিতে থাকবেন। বৃহস্পতিবার তিনি শুধু রইলেনই না, প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির গলায় শোভা পেল সিপিএমের নির্বাচনী প্রতীক কাস্তে-হাতুড়ি-তারা ছাপা উত্তরীয়। কার্যত সেলিমের ‘কমরেড’ হয়েই তাঁর পাশে রইলেন অধীর। যিনি লড়ছেন মুর্শিদাবাদের পাশের আসন বহরমপুর থেকেই।

Advertisement

মুর্শিদাবাদে ভোট গ্রহণ আগামী ৭ মে। অধীরের কেন্দ্রে ১৩ মে ভোট হবে। বহরমপুরের কংগ্রেস প্রার্থী আরও দু’-তিন দিন পরে মনোনয়ন জমা দেবেন। সেখানে থাকার কথা সেলিমেরও। বৃহস্পতিবার মনোনয়ন জমা দিয়েছেন জঙ্গিপুরের কংগ্রেস প্রার্থী মোর্তাজা হোসেন (বকুল)-ও।

ফোনে ফোনে জোটের কথা সেরে নিয়েছেন তাঁরা। মুখোমুখি বৈঠক ছাড়াই বাংলায় অন্তত ৩৯টি আসনে (এখনও পর্যন্ত) বাম-কংগ্রেসের বোঝাপড়া স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে। কিন্তু প্রার্থিতালিকা ঘোষণা, প্রচার— কোনও পর্বেই দুই শিবিরের দুই সর্বোচ্চ নেতাকে এর আগে একসঙ্গে দেখা যায়নি। দুই দলের জেলা স্তরের নেতারা চাইছিলেন দু’জন একসঙ্গে যৌথ কর্মসূচিতে থাকলে নিচুতলায় জোট নিয়ে কর্মীদের জড়তা কাটবে। অবশেষে এক ফ্রেমে দেখা গেল সিপিএম এবং কংগ্রেসের দুই শীর্ষ নেতাকে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত নিবন্ধ