কলকাতা 

১০ই মার্চ কেন্দ্রীয় বঞ্চনার বিরুদ্ধে ব্রিগেডে সভা তৃণমূলের, নরেন্দ্র মোদি কে জবাব দিতেই কী সভা?

শেয়ার করুন

বাংলার জনরব ডেস্ক : কেন্দ্রের মোদি সরকারের বঞ্চনার প্রতিবাদে আগামী দশই মার্চ ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডে সভা করতে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস। পাঁচ বছর পর রাজ্যের শাসক দল ব্রিগেডের সভা করতে চলেছে। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে দলীয় কর্মীদের মধ্যে উৎসাহ উদ্দীপনা বৃদ্ধি করতে সর্বোপরি কেন্দ্রীয় সরকার যেভাবে বিভিন্ন প্রকল্পের অর্থ বরাদ্দ আটকে রেখেছে তার প্রতিবাদে এই সভা বলে জানা গেছে। আজ রবিবারই সেই সমবাবেশের পোস্টার প্রকাশ করা হয়েছে দলের পক্ষে। ১০ মার্চ, রবিবার ব্রিগেড চলোর ডাক দিয়ে সকাল ১১টা থেকে ‘জনগর্জন সভা’ করার কথা জানানো হয়েছে। ছবি রয়েছে তৃণমূলের সর্বময়নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের।

বিজেপি চূড়ান্ত প্রচার পর্ব শুরু করে দিচ্ছে মার্চ মাসের প্রথম দিনেই। ভোটের দামামা বাজাতে রাজ্যে আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এখনও পর্যন্ত যা জানা গিয়েছে, ১ মার্চ আরামবাগে এবং পরের দিন কৃষ্ণনগরে সভা মোদীর। এর পরে ৮ মার্চ ফের সভা রয়েছে মোদীর। বারাসতে হবে মহিলা সম্মেলন। সেখানে সন্দেশখালির নির্যাতিতা মহিলাদের নিয়ে আসতে চায় বিজেপি।ঠিক তার দু’দিন পরেই ব্রিগেডে সভা তৃণমূলের।

Advertisement

বেশ কিছু দিন ধরেই কেন্দ্রীয় বঞ্চনার অভিযোগে সরব তৃণমূল। রাজ্যের বরাদ্দ আটকে দেওয়ার অভিযোগে কলকাতা থেকে দিল্লি বিভিন্ন জায়গায় সমাবেশ, বিক্ষোভ ধর্না করেছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। ব্রিগেডেও সেই সব দাবিকে সামনে রেখেই সমাবেশ করতে চলেছে তৃণমূল। তবে লোকসভা নির্বাচনের মুখে মুখে এই সভা আসলে ভোটের দামামা বাজাতেই।

মনে করা হচ্ছে বিজেপির মুখ হিসাবে এই রাজ্যে লোকসভা নির্বাচনের আগে পহেলা মার্চ ও ৮ ই মার্চ সভা করতে আসছেন দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মোদির সভার পাল্টা হিসাবে ই নিজেদের সাংগঠনিক দক্ষতা এবং জন সমর্থন কে সামনে রাখা লক্ষে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দশই মার্চ ব্রিগেডে সভা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত নিবন্ধ