কলকাতা 

মাধ্যমিক উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার সময়সূচির বদল, নেপথ্যে রহস্য?

শেয়ার করুন

বিশেষ প্রতিনিধি : হঠাৎই নবান্নের নির্দেশে পরীক্ষার দিনগুলি অপরিবর্তিত রেখে সময় সুচির পরিবর্তন করা হয়েছে। অর্থাৎ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার সময়সীমা দু’ঘণ্টা করে এগিয়ে নিয়ে আসা হয়েছে বলে আজ দুই সংস্থার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

পর্ষদ সূত্রে জানানো হয়েছে মাধ্যমিক পরীক্ষা ১১:৪৫ এর পরিবর্তে শুরু হবে সকাল ৯:৪৫ এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হবে বেলা ১২:০০ টার পরিবর্তে সকাল ৯:৪৫ মিনিটে।সূত্র মারফৎ জানা গিয়েছে যে নবান্নে রাজ্য প্রশাসন এবং পর্ষদ-সংসদের সাথে বৈঠকের পর এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

Advertisement

বিগত বছরগুলিতে প্রশ্নপত্র ফাঁসকে কেন্দ্র করে নানা প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয়েছে দুই সংস্থাকে। তাছাড়া এবছর যেহেতু নির্বাচন রয়েছে সেদিকে তাকিয়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরো কঠোর করা হয়েছে ।

ইতিমধ্যেই পর্ষদ সভাপতি রামানুজ গঙ্গোপাধ্যায় একাধিক বৈঠক সেরেছেন জেলার বিভিন্ন শিক্ষা আধিকারিক ও প্রধান শিক্ষক, ভেনু ইনচার্জদের সঙ্গে। প্রশ্নপত্র ফাঁস এড়াতে এবারে প্রত্যেক প্রশ্নে থাকবে একটি ইউনিক কোড যার সাহায্যে অতি সহজেই কোন প্রশ্নপত্র থেকে প্রশ্ন জাল হয়েছে এবং সেটি কোন শিক্ষার্থীর তা অতি সহজেই বের করে নেওয়া যাবে। উত্তরপত্র হারিয়ে যাওয়া কেন্দ্র করেও অনেক অভিযোগ প্রতি বছর জমা হয় সে বিষয়েও সচেতনতার বার্তা দিয়েছে পর্ষদ-সংসদের আধিকারিকরা তবে সময় পরিবর্তন হলেও নির্ধারিত সূচি মেনেই অনুষ্ঠিত হবে ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা।

মনে করা হচ্ছে এই সময়ে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের মধ্যশিক্ষা পর্ষদ মাদ্রাসা শিক্ষা পর্ষদ এবং উচ্চ মাধ্যমিক সংসদের পরীক্ষা রয়েছে, তাই যাতে কোনো রকম প্রশ্নপত্র ফাঁস না হয়ে যায় সেই লক্ষ্যেই সময় এগিয়ে আনা হয়েছে। তবে এ বিষয়ে আধিকারিক স্তর থেকে কোন বার্তা দেওয়া হয়নি এখনো পর্যন্ত। উল্লেখ্য, মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হচ্ছে দোসরা ফেব্রুয়ারি থেকে ১২ই ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চলবে। উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হচ্ছে ১৬ই ফেব্রুয়ারি থেকে চলবে ২৯ শে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। দিন তারিখ সব ঠিক রয়েছে বদলেছে শুধু সময়।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত নিবন্ধ