কলকাতা 

রাম মন্দিরের উদ্বোধনের দিনে মমতার নেতৃত্বে কলকাতায় হবে সংহতি মিছিল, নাগরিক সমাজকে সম্প্রীতির স্বার্থে মিছিলে হাঁটার আহ্বান মুখ্যমন্ত্রীর ,রাজ্য জুড়ে হবে সংহতি মিছিল!

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সেখ ইবাদুল ইসলাম : ২২ শে জানুয়ারি অযোধ্যায় রাম মন্দিরের উদ্বোধনকে ঘিরে সমগ্র দেশ জুড়ে যখন উৎসবে মাতোয়ারা হবে গেরুয়া শিবির ঠিক তখনই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে কলকাতায় হবে সংহতি মিছিল। আজ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছেন যে চার শংকরাচার্যের মতোই এদেশের হিন্দুরাও মনে করেন মন্দির সম্পূর্ণ না করে রাম মন্দিরের প্রাণ প্রতিষ্ঠা করা শাস্ত্র বিরোধী। তিনি বলেন রাম মন্দিরের উদ্বোধন আসলে বিজেপির রাজনৈতিক উৎসব।

২২ শে জানুয়ারি কলকাতায় ফ্যাসিবাদ বিরোধী মঞ্চের পক্ষে থেকে এক বিরাট মিছিল সংঘটিত হবে সমগ্র কলকাতা জুড়ে। অন্যদিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে সংহতি মিছিল শুরু হবে হাজরা থেকে এবং তার শেষ হবে পার্ক সার্কাস ময়দানে। তিনিও দিন বলেন হাজরা থেকে মিছিল শুরু করার আগে তুমি কালীঘাটে যাবেন মা কালীর পাঠ হয়ে যাত্রা শুরু করবেন আর মন্দির মসজিদ গির্জা গুরুদুয়ার হয়ে সেই মিছিল এসে পৌঁছাবে পার্ক সার্কাসে।

Advertisement

মমতা স্পষ্ট করে দিয়েছেন, এটা কোনও প্রতিবাদ কর্মসূচি নয়। তাঁর বক্তব্য, তিনি মনে করেন মন্দিরে প্রাণপ্রতিষ্ঠা সাধুসন্তদের কাজ। তাঁর কথায়, ‘‘আমি সাধুসন্তদের সম্মান করি। তাঁরা কী বলছেন আমি শুনছি।’’ ২২ জানুয়ারি রামমন্দিরের প্রাণপ্রতিষ্ঠা নিয়ে পুরী ও উত্তরাখণ্ডের জ্যোতিষপীঠের শঙ্করাচার্যেরা নরেন্দ্র মোদী তথা বিজেপির তীব্র সমালোচনা করেছেন। তাঁদের বক্তব্য, মন্দিরের প্রাণপ্রতিষ্ঠা শাস্ত্রমতে হচ্ছে না।

মমতা জানিয়েছেন, ওই দিন হাজরা মোড় থেকে মিছিল শুরুর আগে কালীঘাট মন্দিরে যাবেন তিনি। তাঁর কথায়, ‘‘মা কালীকে ছুঁয়ে, মন্দির, মসজিদ, গুরুদ্বার, গির্জা ছুঁয়ে, সর্ব ধর্মের মানুষকে সঙ্গে নিয়ে এই মিছিল করব।’’ দলের পাশাপাশি বৃহত্তর নাগরিক সমাজকেও শামিল হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন তৃণমূলনেত্রী।

একইসঙ্গে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের নাগরিক সমাজকে আহ্বান করেছেন, তারা যেন এই মিছিলে অংশ নেন এবং বিজেপির বিভেদের রাজনীতির বিরুদ্ধে সরব হন। রাজনৈতিক স্বার্থে ধর্মকে ব্যবহারের বিরুদ্ধেও তারা যেন সরব হয় এই বলে তিনি আহ্বান জানিয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সংহতি মিছিলের পাশাপাশি ফ্যাসিবাদ বিরোধী মঞ্চের মিছিলে কার্যত বাইশে জানুয়ারি সমগ্র কলকাতা উত্তাল হয়ে উঠবে বলে মনে করা হচ্ছে।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ