কলকাতা 

৭২ নয়,৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই নবান্নের সামনে থেকে ডি এ আন্দোলনকারীদের অবস্থান বিক্ষোভ তুলে নিতে হবে নির্দেশ হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : রাজ্য সরকারের আবেদনে সাড়া দিয়ে ডিএ নিয়ে সংগ্রামী যৌথ মঞ্চের ধর্নার সময় কমিয়ে দিল কলকাতা হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ। শুক্রবার প্রধান বিচারপতি টিএস শিবজ্ঞানম এবং বিচারপতি হিরণ্ময় ভট্টাচার্যের ডিভিশন বেঞ্চ জানায়, নবান্ন বাসস্ট্যান্ডে ৭২ ঘণ্টার নয়, ৪৮ ঘণ্টা ধর্না কর্মসূচি করা যাবে। শনিবার বিকেলে উঠে যেতে হবে।

শুক্রবার শুনানিপর্বে প্রধান বিচারপতির পর্যবেক্ষণে— মুখ্যমন্ত্রী ডিএ বৃদ্ধির কথা ঘোষণা করেছেন। তার পরেও কেন ধর্না, সে প্রশ্নও তোলেন তিনি। রাজ্য সরকারের আইনজীবী কিশোর দত্ত তখন বলেন, ‘‘আন্দোলনকারীরা তাতে খুশি নন। তাই তাঁরা রাত থেকে ধর্না কর্মসূচি শুরু করেছেন।’’

Advertisement

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার নবান্ন বাসস্ট্যান্ডে ডিএ আন্দোলনকারীদের শর্তসাপেক্ষে সভা করার অনুমতি দিয়েছিল কলকাতা হাই কোর্টের একক বিচারপতির বেঞ্চ। বিচারপতি রাজাশেখর মান্থা জানিয়েছিলেন, ৭২ ঘণ্টার বেশি ধর্নার কর্মসূচি করা যাবে না। একসঙ্গে ৩০০ জনের বেশি এক সময়ে উপস্থিত থাকতে পারবেন না সেখানে।

এ নিয়ে রাজ্যের পক্ষে আপত্তি তুলে জানানো হয়, নবান্ন রাজ্যের প্রধান প্রশাসনিক কার্যালয়। বিচারপতি মান্থা তখন প্রশ্ন তোলেন, রেড রোডে বা যেখানে ১৪৪ ধারা জারি, সেখানে রাজনৈতিক কর্মসূচির অনুমতি দেওয়া হলে, এখানে নয় কেন? এর পর রাজ্যের তরফে বিচারপতি মান্থার ওই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে প্রধান বিচারপতি শিবজ্ঞানমের নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চে আবেদন জানানো হয়েছিল।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ