জেলা 

শিল্প চাই , কাজ চাই-এর দাবিতে ‘ সিঙ্গুর থেকে রাজভবন ‘ পদযাত্রা করছে সিপিএম

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি : লোকসভা নির্বাচনের আগে রাস্তায় নেমে আন্দোলনের ডাক দিল সিপিএম । ষাটের দশকের আন্দোলনকেই এখন আঁকড়ে ধরতে চাইছে বিমান বসুরা । ৩৪ বছর ক্ষমতায় থাকার পর মনে হচ্ছিল সিপিএম যেন আস্তে আস্তে শেষ হয়ে যাচ্ছে । একদিকে শাসক তৃণমূল কংগ্রেসের একচ্ছত্র দাপাদাপি , অন্যদিকে কেন্দ্রে ক্ষমতায় থাকার সুবাদে বিজেপি নিজেদের সংগঠনকে গুছিয়ে নিতে ব্যস্ত । আর সংগঠনের বিস্তারের স্বার্থে তারা হিন্দুত্বকে প্রচার করে চলেছে । তাদের লক্ষ যখন মেরুকরণ ঠিক সময় সিপিএম সাধারণ মানুষের রুটি-রুজির প্রশ্নে আন্দোলনের পথে নেমে পড়ল ।

বিজেপি হিন্দুত্ব দিয়ে বেশ খানিকটা সফল হলেও কিন্ত রুটি-রুজির প্রশ্নে তাদের কোনো আন্দোলন নেই, ফলে গরীব-মেহনতি মানুষদের সমর্থন ফের সিপিএম পেতে পারে এই আশায় সিপি এম এখন আন্দোলনমুখী হয়েছে । এবার তারা আন্দোলন শুরু করছে সিঙ্গুর থেকে । সিপিএম মনে করে সিঙ্গুরে যদি টাটারা কারখানা করতে পারত তাহলে রাজ্যের আর্থিক অবস্থা থেকে শুরু করে কর্মসংস্থানের প্রশ্নে অনেকটাই হাল হত । তা হয়নি কারন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আগ্রাসী আন্দোলনের ফলে শেষ পর্যন্ত টাটারা কারখানা গুটিয়ে নিতে বাধ্য হয়েছে । আবার সুপ্রিম কোর্টের রায়ে জমি ফিরে পেলেও সেই জমি এখনও চাষ যোগ্য হয়ে ওঠেনি । এক কথায় সিঙ্গুরের মানুষ এখন অসহায়ভাবে জীবন যাপন করছে । আর এই অসন্তোষকেই কাজে লাগাতে চাইছে সিপিএম ।

তাই মধ্যপ্রদেশের কৃষক লং মার্চের ধাঁচে সিঙ্গুর থেকে রাজভবন মহা-মিছিল করবে সিপিএম । আগামী ২৮ নভেম্বর মিছিলের সূচনা করবেন , সারা ভারত কৃষক সভার নেতা প্রাক্তন সাংসদ হান্নান মোল্লা । এই মিছিলের বৈশিষ্ট্য মিছিলে অংশগ্রহণকারীরা রাত কাটাবেন বালিতে, স্থানীয় মানুষ ও কমরেডদের বাড়িতে । শুধু মিছিল নয় , পথের দুধারে অবস্থিত সাধারণ মানুষের বাড়ি বাড়ি যাবেন কমরেডরা । তাদের বাড়িতে চা খাবেন , খোজ-খবর নেবেন । আসলে সিপিএম এখন ষাটের দশকে চলে যেতে চাইছে । সেই সময়ে মানুষকে সঙ্গে নিয়ে যে আন্দোলন সংঘটিত করেছিল বামেরা সেই পথে হাঁটতে চাইছে বর্তমান সিপিএম । ২৮ তারিখে সিঙ্গুরে যাত্রা শুরু হয়ে তা শেষ হবে ২৯ তারিখে রানী রাসমনি রোডের সভার মাধ্যমে । এখন দেখার সিপিএমের এই রুটি-রুজির প্রশ্নে আন্দোলনকে সাধারণ মানুষ কেমনভাবে সাড়া দেন । তবে লোকসভা নির্বাচনে আগে বামেদের এই আন্দোলন সাধারণ মানুষের মনে যে খানিকটা রেখাপাত করবে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment