জেলা 

উত্তেজক ভাষণের পরেই আক্রান্ত বিজেপি নেতা জয় ব্যানার্জি, নিশানা ছিল দিলীপ ঘোষের উপর অভিযোগ বিজেপির, নেতার উপর হামলার প্রতিবাদে রাজ্য জুড়ে মশাল মিছিলের ডাক

শেয়ার করুন
  • 13
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিবেদক : রথযাত্রাকে সফল করার উদ্দেশে রাজ্য বিজেপি দলের নেতারা প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন । কিন্ত ইদানিং লক্ষ্য করা যাচ্ছে বিজেপির নেতারা তৃণমূলকে যাচ্ছেতাই ভাষায় আক্রমণ করে যাচ্ছেন। বিজেপির রাজ্য সভাপতি থেকে শুরু করে বিজেপির রাজ্য সম্পাদক সায়ন্তন বসু ও লকেট চ্যাটার্জি তীব্র ভাষায় এবং অশ্লীল শব্দ ব্যবহার তৃণমূলকে আক্রমণ করছেন। রবিবার হুগলী জেলার মশাটে বিজেপির এক সভায় উপস্থিত হয়ে রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, “হাত থাকতে মুখে কেন? আমরা মারামারি চাই না। কিন্তু ওরা যদি মারে আমরা চুপ করে বসে থাকব না। আর হাসপাতালে পাঠিয়ে সময় নষ্ট করবেন না। ওখানেই হিসেব মিটিয়ে দিন। পঞ্চায়েতে কয়েক জায়গায় দেখিয়েছি। আগামী দিনে আরও হবে।”

দিলীপ ঘোষের এই উত্তেজক ভাষণের পরেই এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায় । সভা থেকে ফেরার পথেই উত্তেজনা ছড়ায় ডানকুনির কালিপুরের কাছে। দিলীপ ঘোষের কনভয়ে হামলার চেষ্টা করা হয় বলে অভিযোগ বিজেপির। বিজেপির দাবি, নিরাপত্তারক্ষীদের কারণে দিলীপ ঘোষ বেঁচে গেলেও জয় ব্যানার্জির গাড়িতে হামলা করা হয়।

এমনকী বিজেপি নেতা জয় ব্যানার্জিকে মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে বিজেপি। পরে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা চিকিৎসার জন্য।  এই হামলার প্রতিবাদে  রবিবার সন্ধেয় রাজ্য অফিসের সামনে মশাল মিছিল করে বিজেপি । বিজেপির এই অভিযোগ অবশ্য উড়িয়ে দিয়েছে তৃণমূল। আগামিকাল প্রতিবাদে রাজ্য জুড়ে মশাল মিছিলের ডাক বিজেপির।

 


শেয়ার করুন
  • 13
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment