দেশ 

সিবিআই দপ্তরে ২৫ শে মার্চ হাজিরা দিতে হবে বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী তেজস্বী যাদবকে নির্দেশ দিল্লি হাইকোর্টের

শেয়ার করুন

বাংলার জনরব্র ডেস্ক: বিহারের মুখ্যমন্ত্রী ও লালু প্রসাদ যাদবের পুত্র তেজস্বী যাদবকে আগামী ২৫ শে মার্চ সিবিআই এর দিল্লির দপ্তরে হাজিরা দিতে হবে বলে নির্দেশ দিল দিল্লির হাইকোর্ট। জমির পরিবর্তে চাকরি দেওয়ার মামলায় সিবিআই-এর হাজিরা এড়াতে চেয়েছিলেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী তেজস্বী যাদব তিনি দিল্লি হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন এই এই ঘটনা যখন ঘটেছিল তখন তিনি নাবালক ছিলেন সুতরাং এই মামলা থেকে তাকে অব্যাহতি দেয়া হোক যদিও গতকালই এই মামলায় বিহারের প্রাক্তন দুই মুখ্যমন্ত্রী লালু প্রসাদ যাদব ও রাবড়ি যাদবকে আগাম জামিনে দিয়েছে আদালত।

রেলমন্ত্রী থাকাকালীন সস্তায় জমি কিনে তার পরিবর্তে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল লালুর বিরুদ্ধে। এই অভিযোগের ভিত্তিতে ইতিমধ্যেই লালু প্রসাদের স্ত্রী রাবড়ি দেবী, কন্যা মিসা ও ভারতীর বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছে ইডি। প্রায় পাঁচ ঘন্টা ধরে রাবড়ি দেবীকে জিজ্ঞাসাবাদ করে সিবিআই।

Advertisement

তল্লাশি হয়েছে বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী তেজস্বীর বাড়িতেও। তারপরেই দিল্লির সিবিআই দপ্তরে হাজিরা দিতে নোটিস পাঠানো হয় তেজস্বীকে। সেই নোটিস চ্যালেঞ্জ করে দিল্লি হাই কোর্টের (Delhi High Court) দ্বারস্থ হন তিনি। তবে তিনবার হাজিরা এড়ানোর পরে অবশেষে হাজিরা দিতে হবে তেজস্বীকে। দিল্লি হাই কোর্ট জানিয়ে দিয়েছে, আগামী ২৫ মার্চ দিল্লিতে সিবিআই দপ্তরে উপস্থিত থাকতে হবে বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রীকে। যদিও চলতি মাসে গ্রেফতার করা হবে না তেজস্বীকে, এমনই আশ্বাস দেওয়া হয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার তরফে।

দিল্লি হাই কোর্টের আবেদনে তেজস্বী বলেন, এই দুর্নীতির অভিযোগ উঠছে তাঁর বাবা ও অন্যান্য আধিকারিকদের বিরুদ্ধে। ঘটনার সময়ে তিনি নাবালক ছিলেন বলেই দাবি তেজস্বীর। অন্যদিকে শোনা গিয়েছিল মার্চেই বাবা হতে চলেছেন তেজস্বী। হাসপাতালে ভরতি রয়েছেন তাঁর অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী। সমস্ত বিষয় মাথায় রেখেই আপাতত তাঁকে গ্রেফতার না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিবিআই, এমনটাই মত ওয়াকিবহাল মহলের।

 


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত নিবন্ধ