কলকাতা 

শাসক তৃণমূলের সোস্যাল মিডিয়াকে সাসপেন্ড করল ফেসবুক , জনপ্রিয়তার সঙ্গে পাল্লা দিতে না পেরে বিজেপি এই কাজ করিয়েছে দাবি তৃণমূলের, ক্ষুদ্ধ মুখ্যমন্ত্রী

শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিশেষ প্রতিনিধি : ফেসবুকের খামখেয়ালি পনার এবার শিকার হলেন রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস । বেশ কয়েক মাস ধরে ফেসবুক এক তরফাভাবে বিভিন্ন ব্যক্তি সংস্থা এবং নিউজ পোর্টালের ফেসবুক পেজকে মাঝে-মধ্যে ব্যান করে দিচ্ছিল । নানা অভিযোগে । ফেসবুক এমন একটি সংস্থা যেখানে অভিযোগ করার জায়গা থাকে না । এবার ফেসবুকের রোষানলে পড়ল শাসক তৃণমূলের দুটি ফেসবুক গ্রূপ এবং একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রূপ । এর মধ্যে ফেসবুক গ্রূপটিকে সাসপেন্ড করা হয়েছে আর হোয়াটস গ্রূপকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে ।ইতিমধ্যে দিল্লিতে ফেসবুক ও হোয়াটসঅ্যাপের সদর দপ্তরে এনিয়ে লিখিত অভিযোগ জানিয়েছে তৃণমূল।

এদিকে ফেসবুক এবং হোয়াটসঅ্যাপ গ্রূপ বন্ধ করে দেওয়ার ঘটনায় শাসক তৃণমূল কংগ্রেস বিজেপিকে দায়ী করেছে । তাদের দাবি তৃণমূলের ফেসবুকের জনপ্রিয়তায় ইর্ষান্বিত হয়ে বিজেপি এই কাজ করেছে ।

তৃণমূলের দাবি, ফেসবুকে TMCS ও TCCF নামে তাদের দুটি গ্রূপ ছিল। প্রতিটি গ্রূপে সদস্য সংখ্যা ছিল দেড় লাখেরও বেশি। অভিযোগ, গতরাত থেকে এই গ্রূপ দুটো সাসপেন্ড করে দেওয়া হয় ফেসবুকের তরফে। এরপর দিল্লিতে ফেসবুকের দপ্তরে অভিযোগ জানানো হয় দলের তরফে। তৃণমূলের দাবি, গ্রূপ দুটি রিস্টোর করার আশ্বাস দিয়েছে সংস্থা।

অন্যদিকে তৃণমূলের একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। ৯৮৩০৭৯৮১৪৪ এই নম্বরটি ব্যবহার করে যে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রূপটি চলত সেটি বন্ধ করা হয়েছে।  সূত্রের খবর, গ্রূপ দুটি রিস্টোর করা না হলে আইনি পথে যেতে পারে তৃণমূল।

তৃণমূলের অভিযোগ, সোশাল মিডিয়ায় তাদের জনপ্রিয়তার জন্য বিজেপি এই কাজ করিয়েছে। এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অন্যদিকে তৃণমূল মিডিয়া সেলের দায়িত্বপ্রাপ্ত দীপ্তাংশু চৌধুরি টুইট করে এই ঘটনার নিন্দা করেছেন ও বিজেপি-র বিরুদ্ধে এনিয়ে অভিযোগ করেছেন।

 


শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment