কলকাতা 

কোন ঘটনা বড় কোনটা ছোট তা এখনই বলছি না, কোনও ঘটনাকেই ছোট বলে দেখছি না, সবকিছু খতিয়ে দেখা হচ্ছে, মাঝেরহাট ব্রীজ পরিদর্শন করে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

শেয়ার করুন
  • 10
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি : দার্জিলিং সফরসূচি সংক্ষিপ্ত করে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কলকাতায় ফিরে এলেন । বুধবার সন্ধ্যায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাগডোগরা থেকে বিমানে দমদম বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান । বিমানন্দর থেকে সোজা বাইপাশ হয়ে পার্কসার্কাস ব্রীজের উপর দিয়ে মোমিনপুর পৌঁছান সেখান থেকে একেবারে দূর্ঘটনাস্থলে হাজির হন মুখ্যমন্ত্রী । তিনি নিজে মাঝেরহাট ব্রীজ পরিদর্শন করেন। পরিদর্শন করার পর পুলিশ কমিশনার ও মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের সঙ্গে নানা বিষয় নিয়ে কথা বলেন। পরে তিনি সাংবাদিকদের বলেন , মেট্রো রেলের কাজের জন্য কম্পন থেকে এই দূর্ঘটনা হতে পারে।

মমতা বলেন, অনেক বড় ঘটনা হতে পারত। ব্রিজ ভেঙে পড়লেও ঈশ্বরের আশীর্বাদে আরও বিপদ হতে পারত। একজনের মৃত্যু হয়েছে। সেটা দুর্ভাগ্যজনক। মৃতের পরিবারকে ৫ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়েছে। আহতদের ৫০ হাজার টাকা দেওয়া হবে। যেভাবে সকলে মিলে উদ্ধারকাজ সামলেছেন তাতে সকলকে ধন্যবাদ জানান মমতা। স্থানীয়দেরও অভিবাদন জানান।

এই ব্রিজ প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ৫৪ বছর পুরনো এই ব্রিজ। এমন অনেক ব্রিজ বাংলায় রয়েছে যার কাগজপত্র সহজে পাওয়া যায়না। সরকার ছয় মাস অন্তত ব্রিজ পর্যবেক্ষণ করে। আগামিদিনে আরও কড়া পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। যেজন্য বৃহস্পতিবার নবান্নে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক রয়েছে।এর আগেই কৌশলী মমতা পারিপার্শ্বিক অবস্থা ব্যাখ্যা করে জানান, গত ৯ বছর ধরে এখানে মেট্রোর কাজ চলছিল। কাজ হলে স্থানীয়রা ভাবতেন যেন ভূমিকম্প হচ্ছে। তবে কোন ঘটনা বড় কোনটা ছোট তা এখনই বলছি না। কোনও ঘটনাকেই ছোট বলে দেখছি না। সবকিছু খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

ব্রিজ মেরামতির যে সময় লাগবে তার জন্য এলাকার মানুষকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে আহ্বান জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।তবে মেট্রো রেল আগেই তাদের অবস্থান স্পষ্ট করে জানিয়েছে, গত একবছর ধরে এই এলাকায় মেট্রোর কোনও কাজ হচ্ছিল না। এই ব্রিজ ভেঙে পড়ার সঙ্গে মেট্রো রেলের কোনও সম্পর্ক নেই।


শেয়ার করুন
  • 10
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment