কলকাতা 

একটানা বৃষ্টির জেরে শহর কলকাতা জলমগ্ন, ২৪ ঘন্টা ধরে চলবে বৃষ্টি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক: গভীর রাত থেকে একটানা বৃষ্টি কলকাতা এবং পার্শ্ববর্তী এলাকা জলমগ্ন হয়ে পড়েছে। উত্তর ও মধ্য কলকাতা কার্যত বন্যার চেহারা নিয়েছে। দক্ষিণ কলকাতার নিচু এলাকাগুলিতে জল জমেছে। কলকাতার বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ জায়গায় জল জমেছে বলে খবর পাওয়া গেছে একইসঙ্গে সটলেক বিধান নগর এলাকায় সর্বোচ্চ জলমগ্ন হয়ে পড়েছে।

সোমবার দিনভর এমনই আবহাওয়া থাকবে বলে পূর্বাভাস আলিপুর হাওয়া অফিসের। ফলে সারাদিনই কমবেশি জলযন্ত্রণা ভোগ করতে হবে বাসিন্দাদের।

আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে তৈরি হয়েছে একটি ঘূর্ণাবর্ত। তা উত্তর ওড়িশা-বাংলা ও বাংলাদেশ সংলগ্ন উপকূলে অবস্থান করছে এই মুহূর্তে। এই ঘূর্ণাবর্তের প্রভাবে প্রচুর জলীয় বাষ্প ঢুকছে বঙ্গোপসাগর সংলগ্ন স্থলভাগে। তৈরি হচ্ছে বজ্রগর্ভ মেঘ এবং তা থেকে বজ্রবিদ্যুৎ-সহ ভারী থেকে মাঝারি বৃষ্টি শুরু হয়েছে দক্ষিণবঙ্গের ৫ জেলায়। কলকাতা ছাড়াও মাঝরাত থেকে টানা বৃষ্টিতে ভিজছে দুই ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি। হিসেব বলছে, গত ২৪ ঘন্টায় আলিপুরে বৃষ্টি হয়েছে ১১৭.২ মিলিমিটার। কলকাতার অন্তত ৮টি জায়গায় বৃষ্টির পরিমাণ ১০০ মিলিমিটারের কাছাকাছি।

আলিপুর হাওয়া অফিসের (Alipore Weather Office) পূর্বাভাস অনুযায়ী, সোমবার সারাদিন আকাশ মেঘলা থাকবে। দফায় দফায় চলবে বৃষ্টি। আজ দিনভর উপকূলের জেলাগুলিতে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হবে দক্ষিণবঙ্গের প্রায় সবকটি জেলায়।

তবে মঙ্গলবার থেকে আবহাওয়ার উন্নতির সম্ভাবনা, কমতে পারে বৃষ্টির পরিমাণ। টানা বৃষ্টিতে খানিকটা কমেছে তাপমাত্রাও। সোমবার সকালে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রবিবার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৩১ ডিগ্রি। দুটিই স্বাভাবিকের নিচে। তবে বাতাসে জলীয় বাষ্পের সর্বোচ্চ পরিমাণ প্রায় ৯৯ শতাংশ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ