প্রচ্ছদ 

মাতঙ্গিনী হাজরা নাকি অসমের মানুষ ! দোহাই বাংলাকে এভাবে অপমান করবেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বুলবুল চৌধুরি : স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তিতে  লালকেল্লার মঞ্চে ভাষণ দিতে গিয়ে মাতঙ্গিনী হাজরাকে অসমের স্বাধীনতা সংগ্রামী বলে অভিহিত করেছেন। বাংলার মেয়েকে অসমের বলে কী শিক্ষা দিয়ে গেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী । আসলে স্বাধীনতা সংগ্রামে তাঁর এবং তাঁর সংগঠন আরএসএসের কোনো ভূমিকা ছিল না । তাই হয়তো তিনি আবিস্কার করলেন মাতিঙ্গিনী অসমের মেয়ে ।  এভাবে আরএসএস একদিন স্বাধীনতা সংগ্রামে বাঙালিদের ভূমিকাকে ভূলিয়ে দেবে । প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানেন না এটা ঠিক নয়, তিনি ইচ্ছাকৃতভাবে মিথ্যা তথ্য পরিবেশন করেছেন । এটাই আরএসএসের সংস্কৃতি। একটা মথ্যিাকে বারবার প্রচার করে তাকে সত্য বলে প্রতিষ্টা করা ।

তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর কাছে আমাদের অনুরোধ দোহাই আর যাই করুন বাংলাকে অপমান করবেন না । বরং এই ধরনের মন্তব্য করার জন্য বাংলার মানুষরে ক্ষমতা চাইলে আপনার সম্মান আরও বৃদ্ধি পাবে ।

৭৫তম স্বাধীনতা দিবসে লালকেল্লায় দাঁড়িয়ে স্বাধীনতাযুদ্ধে অংশগ্রহণকারী মহিলাদের স্মরণ করছিলেন প্রধানমন্ত্রী। ঝাঁসির রানি লক্ষ্মীবাঈ-সহ একাধিক মহিলা যোদ্ধাকে সম্মান জানান তিনি। বিভিন্ন রাজ্যের বীরাঙ্গনাদের নামের পাশাপাশি উচ্চারিত হয় তমলুকের মাতঙ্গিনী হাজরার নাম। কিন্তু তাঁকে বাংলার স্বাধীনতা যোদ্ধা হিসেবে পরিচয় দেওয়ার বদলে অসমের (Assam) বীরাঙ্গনা বলে দাবি করেন প্রধানমন্ত্রী। এর পরই তীব্র বিতর্ক তৈরি হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই প্রধানমন্ত্রী এহেন মন্তব্যকে ঘিরে তুমুল সমালোচনা শুরু হয়েছে।
তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ টুইটারে লেখেন, “মাতঙ্গিনী হাজরা অসমের? আপনার কি মতিভ্রম হয়েছে? আপনি ইতিহাস জানেন না। কোনও অনুভূতি নেই আপনার।” প্রধানন্ত্রীকে কটাক্ষ করে তিনি আরও লেখেন, “আপনি তো অন্যের লেখা স্ক্রিপ্ট পড়েন। এটা বাংলার অপমান। আপনি ক্ষমা চান।”
প্রসঙ্গত, মাতঙ্গিনী হাজরা ছিলেন ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনে অংশগ্রহণকারী এক মহান বিপ্লবী নেত্রী। ১৯৪২ খ্রিস্টাব্দের ২৯ সেপ্টেম্বর তদনীন্তন মেদিনীপুর জেলার তমলুক থানার সামনে ব্রিটিশ ভারতীয় পুলিশের গুলিতে তিনি শহিদ হয়েছিলেন। তিনি ‘গান্ধীবুড়ি’ নামে পরিচিত ছিলেন। ইতিহাস ঘাঁটলে জানা যায়, ১৮৬৯ খ্রিস্টাব্দে তমলুকের অদূরে আলিনান নামে একটি ছোটো গ্রামে তাঁর জন্ম হয়েছিল।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ