দেশ 

খরচ কমানোর লক্ষে লোকসভা ও বিধানসভা নির্বাচন এক সঙ্গে করার দাবি জানিয়ে আইন কমিশনকে চিঠি দিলেন অমিত শাহ

শেয়ার করুন
  • 22
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি :  ভারতের নির্বাচন কমিশন সমগ্র দেশে লোকসভা ও বিধানসভা নির্বাচন আলাদা না করে একটি নির্বাচন করার পক্ষে প্রস্তাব দেয় কয়েকদিন আগেই।  তা নিয়ে বির্তক চলছে, সেই বির্তক কাটতে না কাটতেই এবার বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহও দেশে একটাই নির্বাচন করতে আইন কমিশনকে চিঠি  দিলেন।

গত ১৭ জুন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী নীতি আয়োগের গভর্নিং কাউন্সিলের আলোচনায় এই প্রসঙ্গ তুলে  সারা দেশে এই নিয়ে যাতে গঠনমূলক বিতর্ক হয় তার আহ্বান জানান। লোকসভা ও বিভিন্ন রাজ্যের বিধানসভা ভোট একবারে হলে তাতে সবদিকে সাশ্রয় হবে বলেই ইঙ্গিত দেন মোদী। ২০২৪ সাল থেকে একসঙ্গে করে লোকসভা ও বিধানসভা ভোট করার জন্য নীতি আয়োগ গত বছরে সুপারিশ করে। আইন কমিশনের এই নিয়ে তৈরি খসড়ার নাম ‘সাইমলটেনাস ইলেকশনস কনস্টিটিউশনাল অ্যান্ড দ্য লিগাল রিপ্রেজেন্টেশন অব পিপলস অ্যাক্ট, ১৯৫০’। এতে এক দেশ এক ভোট নিয়ে নানা প্রস্তাবনা দেওয়া হয়েছে। কংগ্রেসের তরফে এই ভাবনাকে নস্যাৎ করা হয়েছে। বিরোধী বাম বা তৃণমূল কেউই এই এক দেশ এক ভোটের ভাবনাকে আমল দেয়নি।

এই ভাবনা  সংসদীয় গণতন্ত্র বিরোধী বলে কংগ্রেস ,তৃণমূল ও বামেরা মনে করে। যদিও ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক, সমাজবাদী পার্টি প্রধান অখিলেশ যাদবরা এই প্রস্তাবের সমর্থনে মুখ খুলেছেন।

এদিন অমিত শাহ যে চিঠি আইন কমিশনকে পাঠিয়েছেন তাতে বলেছেন, ২০১৪ সালে ৪ হাজার কোটি টাকা খরচ হয়েছিল। এক সঙ্গে ভোট করলে অনেকটা খরচ বাঁচানো যাবে বলেই শাহ চিঠিতে জানিয়েছেন।।অমিত শাহের চিঠি দলের নেতা ভূপেন্দ্র যাদব আইন কমিশনে গিয়ে আধিকারিকদের হাতে তুলে দিয়েছেন।


শেয়ার করুন
  • 22
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment