কলকাতা 

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হাসিনার বিরুদ্ধে কলকাতার রাজপথে মিছিল করল যাদবপুর-প্রেসিডেন্সীর পড়ুয়ারা

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি : বাংলাদেশের সাধারণ মানুষ আবার নতুন করে জেগে উঠেছে । এই জেগে ওঠার নেপথ্যে রয়েছে হাসিনা সরকারের ব্যর্থতা। বাংলাদেশের ছাত্র-যুবরা এবার নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের ডাক দিয়েছে । আর সেই ডাক এখন প্রতিবেশী ভারত থেকে শুরু করে সমগ্র বিশ্বে বসাবসকারী বাঙালিদেরকে ঐক্য বদ্ধ করেছে।আন্দোলনটা ছিল মূলত ‘নিরাপদ সড়ক চাই’-এর দাবি নিয়ে। কিন্তু ক্রমশ সেই আন্দোলন দানা বেঁধেছে হাসিনার বিরুদ্ধে৷ ক্ষুব্ধ ছাত্রের দল বাংলাদেশের গণ্ডি ছাড়িয়ে আন্দোলন ছড়িয়ে দিয়েছে দেশ-বিদেশেও৷ অরাজনৈতিক আন্দোলন ক্রমশ রাজনৈতিক হয়েছে৷ যুক্ত হয়েছে একাধিক কেলেঙ্কারি৷ আর এমনটা সম্ভব শুধুমাত্র হয়েছে বাংলাদেশি পুলিশের বর্বরতায়৷

আন্দোলনের শুরুটা হয় বেশ কয়েকদিন আগেই৷ বাংলাদেশের রাজপথে গাড়ি চাপা পড়ে মৃত্যু হয় দুই নিরীহ পড়ুয়ার৷ তাকে কেন্দ্র করেই উত্তাল হয় ছাত্র সমাজ৷ আট থেকে আশি যুক্ত হন আন্দোলনে৷ এখানেই শেষ নয়, আন্দোলনে নেপথ্যে রয়েছে আরও কারণ। গাড়ী চাপা পড়ে শিক্ষার্থীর মৃত্য হলে ,সেই ঘটনা কেন্দ্র করে যে পুলিশী নির্যাতন হয়েছিল তার ছবি প্রকাশ করার দায়ে গ্রেপ্তার করা হয় সহিদুল ইসলাম নামে একজন চিত্র সাংবাদিককে । আর ওই চিত্র সাংবাদিক নিঃশর্ত মুক্তি দেওয়ার দাবিতে শেষ পর্যন্ত আন্দোলনের পথে বাংলাদেশের আট থেকে আশি বছরের মানুষ।

সেই গণ-আন্দোলনের পক্ষে দাঁড়িয়ে আজ কলকাতার রাজপথে মিছিল করল প্রেসিডেন্সী-যাদবপুরের ছাত্রছাত্রীরা। মিছিলের শ্লোগান ছিল সরাসরি সেদেশের প্রধানমন্ত্রী সেখ হাসিনার বিরুদ্ধে । “বাংলাদেশ হারেনি,হেরেছেন হাসিনা” এই শ্লোগানকে সামনে রেখে আজ কলকাতার নামী দুই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা মিছিল করে বাংলাদেশ উপদুতাবাসে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের আটকে দেয়।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment