কলকাতা 

মেডিকেলের আন্দোলনকারী পড়ুয়াদের বিক্ষোভ ও ধ্বস্তাধস্তিতে অধ্যক্ষ আহত

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি  : মেডিকেল কলেজের প্রথম বর্ষের পড়ুয়াদের নতুন হস্টেলে থাকার ব্যবস্থা হয়েছে। কিন্তু সিনিয়র ছাত্রদের পুরানো হস্টেলেই থাকতে হচ্ছে। সিনিয়র  ছাত্রদের অভিযোগ, পুরানো হস্টেলে অনেক ঘর থাকার উপযুক্ত নয়। যে কোনও সময় দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। এই সমস্ত অভিযোগ নিয়ে জুনিয়র ডাক্তার  ও সিনিয়র ছাত্রদের একাংশ আন্দোলন করছে। গত ১০ জুলাই আমরণ অনশন শুরু করে পাঁচ ছাত্র। পড়ে তা বেড়ে দাঁড়ায় ছ’জনে। আজ হস্টেলের সমস্যা নিয়ে মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ উজ্জ্বল ভদ্র সাংবাদিক বৈঠক করেন। সাংবাদিক বৈঠক ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়া সময় আন্দোলনকারী পড়ুয়াদের বিক্ষোভে অসুস্থ হয়ে পড়লেন কলকাতা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ উজ্জ্বল ভদ্র। আজ তাঁকে ঘিরে দফায় দফায় বিক্ষোভ দেখায় পড়ুয়ারা। বিক্ষোভ দেখানো হয় হাসপাতালের সুপারকে ঘিরেও। ধস্তাধস্তি, ধাক্কাধাক্কিতে মেঝেতে পড়ে যান অধ্যক্ষ এবং সুপার। সুপার অসুস্থ হয়ে পড়লে তাঁকে মেডিকেল কলেজের কার্ডিওলজি বিভাগে ভরতি করা হয়েছে। তাঁর চিকিৎসা চলছে।আন্দোলনকারীদের দাবি টানা সাতদিন ধরে তারা অনশন চালিয়ে যাচ্ছে কিন্তু কলেজ কর্তৃপক্ষ আমল দিচ্ছে না। যতক্ষণ না তাঁদের দাবি মিটছে, ততক্ষণ তারা অধ্যক্ষকে সেখান থেকে যেতে দেবে না। দফায় দফায় চলতে থাকে বিক্ষোভ। হাসপাতালের সুপার সৌগত ঘোষকে ঘিরেও বিক্ষোভ দেখানো হয়। ধাক্কাধাক্কিতে পড়ে যান অধ্যক্ষ এবং  সুপার।

বিক্ষোভের জেরে অধ্যক্ষ অসুস্থ হয়ে পড়লে সেখানে উপস্থিত অন্য চিকিৎসকরা আন্দোলনকারীদের হাত জোর করে অধ্যক্ষকে ছেড়ে দেওয়ার আবেদন জানান। এরপর হাসপাতালের নিরাপত্তারক্ষীরা তাঁকে সরিয়ে নিয়ে যান। হাসপাতাল সূত্রে খবর, অধ্যক্ষর ECG, ECO সহ বিভিন্ন টেস্ট করানো হয়েছে।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment