দেশ 

রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে ‘মমতা কমিশন’ বলে কটাক্ষ বিজেপির

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ রাজ্য নির্বাচন কমিশনার একে সিংহ নজিরবিহীন ডিগবাজির পর রাজ্যের বিরোধীরা সমালোচনা শুরু করেছে। এদিকে বিজেপি দল সরাসরি রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে ‘মমতা কমিশন’ নামে অভিহিত করেছে।
৯ এপ্রিল সুপ্রিম কোর্ট রাজ্য নির্বাচনের কাজের উপর হস্তক্ষেপ করবে না বলার সঙ্গে সঙ্গে এও বলে নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার অধিকার সবার রয়েছে। অতএব যাঁরা প্রার্থী হতে চান, তাঁদের সকলকেই প্রার্থী হওয়ার সুযোগ করে দিতে হবে রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে। এর পরিপ্রেক্ষিতে নির্বাচন কমিশনার একে সিংহ ওইদিন রাতেই এক বিজ্ঞপ্তি জারি করে পরের দিন সকাল ১১ টা থেকে বিকাল ৩ টে পর্যন্ত মনোনয়ন জমা দেওয়া যাবে বলে ঘোষণা করেন। এর কয়েক ঘন্টা পর নজিরবিহীন ভাবে কমিশনার নতুন করে বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়ে দেয় আর কোনও মনোনয়ন জমা নেওয়া হবে না। আর এই ঘোষণায় রাজ্যের একজন সাংবিধানিক প্রধানের দায়িত্ব কর্তব্য নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। বিজেপি কমিশনের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যায়। কমিশনের এই নির্দেশিকার বিরুদ্ধে স্থগিতাদেশ দিয়েছেন বিচারপতি সুব্রত তালুকদার।
নির্বাচন কমিশনের এই সিদ্ধান্ত সম্পর্কে বিজেপি নেতা রীতেশ তিওয়ারি ট্যুইটে বলেছেন, রাজ্য নির্বাচন কমিশন আসলে ‘ মমতা কমিশন’। তাই রাজ্য সরকার যা বলছে, কমিশন তাই করছে।
কমিশনের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে সিপিএম ও কংগ্রেসও ক্ষোভপ্রকাশ করেছে। বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু বলেছেন, কমিশনের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে তাঁরা সুপ্রিমকোর্টে যাবেন।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment