দেশ 

বিধানসভার অধিবেশন ডাকা না হলে রাজ্যের মানুষ রাজভবন ঘেরাও করবে রাজস্থানের রাজ্যপালকে চূড়ান্ত হুঁশিয়ারি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী গেহলট

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : ‘‘রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করতে যাচ্ছি। উনি যে চাপে রয়েছেন, তা বুঝতে পারছি। কিন্তু ওঁকে অনুরোধ করব, যাতে অধিবেশন ডাকা নিয়ে কোনও রকম চাপের মুখে নতিস্বীকার না করেন। নইলে রাজ্যের মানুষ যদি রাজভবন ঘেরাও করতে চলে আসেন, তাহলে আমাদের কোনও দায়িত্ব থাকবে না।’’ আজ শুক্রবার রাজভবনে রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করতে যাওয়ার আগে এই ভাষাতেই হুঁশিয়ারি দিলেন রাজ্যস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট । সচিন পাইলটরা বিদ্রোহ করার পরেই মুখ্যমন্ত্রী গেহলট বারবার রাজ্যপালকে বিধানসভার অধিবেশন ডাকার জন্য অনুমতি দেওয়ার অনুরোধ করছিলেন । কিন্ত রাজ্যপাল কলরাজ মিশ্র বিধানসভা ডাকতে চাননি । এনিয়ে আজ আবার রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করেন মুখ্যমন্ত্রী ।  তিনি বলেন , ‘‘উপর থেকে কী এমন চাপ আসছে, যার জন্য রাজ্যপাল বিধানসভার অধিবেশন ডাকতে ইতস্তত করছেন, তা জানি না আমরা।’’

রাজভবনের বাইরে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, ‘‘করোনা এবং বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে বিধানসভার অধিবেশনে আলোচনা চাই আমরা। কিন্তু আমাদের ধারণা, উপর থেকে চাপ দেওয়া হচ্ছে। তার জন্যই অধিবেশন ডাকছেন না রাজ্যপাল।’’ সোমবার থেকে অধিবেশন শুরুতে তাঁদের আপত্তি নেই বলেও জানান গেহলট জানান। তিনি বলেন, ‘‘আমরা তো সোমবার থেকেই অধিবেশন শুরু করতে চাই। সেখানেই সব কিছু স্পষ্ট হয়ে যাবে। এ নিয়ে ফোনে রাজ্যপালের সঙ্গে কথা হয়েছে আমার। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সিদ্ধান্ত নিতে অনুরোধ করেছি ওঁকে।’’

তিনি অভিযোগ করেন, ‘‘গোটাটাই বিজেপির খেলা। ওদের নেতারা এই ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। আমাদের বিধায়কদের পণবন্দি করে রাখা হয়েছে। কর্নাটক এবং মধ্যপ্রদেশে ঠিক যেমনটি ঘটেছিল, রাজস্থানেও তা ঘটাতে চাইছে ওরা। কিন্তু সমস্ত বিধায়ক এবং সাধারণ মানুষ আমাদের পাশে রয়েছেন।’’

এদিন নিজের সরকারের সংখ্যাগরিষ্ঠতা যে আছে তার প্রমাণ দিতে সরকার পক্ষের সব বিধায়ককে বাসে করে রাজভবনে নিয়ে আসেন গেহলট । অবিলম্বে বিধানসভার অধিবেশন শুরু করার দাবিতে রাজভবনের সামনে ধর্নায়ও বসেন ওই বিধায়করা।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment