কলকাতা 

লকডাউন : পাউরুটি শিল্প সংকটে পুলিশ অযথা হয়রানি করছে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ ইদ্রিশ

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিশেষ প্রতিনিধি : পাউরুটি শিল্পে সংকট।অযথা আতঙ্কে শ্রমিকরা কলকাতা ছেড়ে চলে যাচ্ছেন।পাউরুটি তৈরী করার কাঁচামাল সহ যা প্রয়োজনীয় যেমন ময়দা, চিনি, ঘি, ইষ্ট ইত্যাদি সরবরাহে (যাতায়াতে ) যাতে তারা পুলিশ কোন বাধা না দেয় সরকারের কাছে আবেদন জানিয়েছেন, পাউরুটি প্রস্ততকারকদের সংগঠন দি জয়েন্ট এ্যাকশন কমিটির সম্পাদক তথা বিধায়ক ইদ্রিশ আলি। তিনি বলেন, আমাদের রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মাননীয়া মমতা ব্যানার্জি করোনা ভাইরাস রুখতে অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছেন।তিনি নিজের প্রাণের ভয় না করে মানুষের জন্য ২৪ ঘন্টা চিন্তা করছেন যারা বিরোধী তারাও বলবে এধরনের মানবিক মুখ্যমন্ত্রী আগে কোন দিন দেখা যাইনি।

বিধায়ক ইদ্রিশ আলি বলেন, দুঃখের বিষয় পাঁউরুটি শিল্পে যুক্ত বহু শ্রমিকরা অযথা করোনা ভাইরাস আতঙ্কে কলকাতা ছেড়ে চলে যাচ্ছেন বা অনেকে কাজ করতে চাইছেন না যার ফলে বেশ কিছু বেকারী বন্ধ হয়ে গেছে ।পাঁউরুটি প্রস্ততকারকের মালিকরা চিন্তিত তাদের কাছে মাত্র দু চার দিনের মাল মজুত আছে (যেমন ময়দা, চিনি, ঘি, ইষ্ট ইত্যাদি) । তারপরে কাঁচামাল না পেলে পাউরুটি প্রস্তত করা অসুবিধা হয়ে যাবে । আরও উল্লেখ থাকে ময়দা, চিনি, ঘি, ইষ্ট ইত্যাদি আনার জন্য লরি বা ছোট গাড়ি যাতায়াতে কিছু কিছু জায়গাতে পুলিশ বাধা দিচ্ছে (কারন খালি গাড়ি থাকার জন্য )।যাতায়াত করলে একবার তো খালি গাড়ি থাকবেই ।

বেকারী মালিকদের পক্ষে বিধায়ক ইদ্রিশ আলি সরকারের কাছে আবেদন করেন যাতে পাউরুটি প্রস্ততকারকদের এই সমস্যার সমাধান হয়।তিনি আরও জানান কিছু মানুষ তাদের প্রয়োজনের তুলনায় বেশি করে পাউরুটি মজুত রাখাই কিছু কিছু জায়গাতে সাধারণ মানুষ পাউরুটি পাচ্ছে না।সংগঠনের পক্ষ থেকে শ্রমিকদের কাছে আবেদন এই সংকটময় মূহুর্তে আপনারা কাজ ছেড়ে চলে যাবেন না ।বেকারী মালিকদের কাছে ইদ্রিশ আলির আবেদন এই মহামারীর সময় ইচ্ছাকৃত ভাবে পাউরুটি প্রস্তত করা বন্ধ রাখবেন না ।সাধারণ মানুষের কাছে তাঁর আবেদন আপনারা সঠিক ওজনে পাউরুটি দেখে নিন এবং নিধারিত মূল্য দিন ।আমরা সাধারন মানুষের পাশে আছি এবং থাকব ।
একই কথা জানান বের্কাস কো-অর্ডিনেশন কমিটির সম্পাদক সেখ ইসমাইল হোসেন । উল্লেখ থাকে দি জয়েন্ট ত্র্যাকশন কমিটি অফ ওয়েস্ট বেঙ্গল বের্কাস’ ত্র্যাসোসিয়েশন এবং বের্কাস’ কো-অডিনেশন কমিটি সারা পশ্চিমবঙ্গের পাউরুটি শিল্পকে নিয়ন্ত্রণে রাখে ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment