দেশ 

করোনা রুখতে দেশজুড়ে ৩১ মার্চ পর্যন্ত সব ধরনের রেল চলাচল বন্ধ করে দিল কেন্দ্র , চলবে শুধুই মালগাড়ি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : বিশ্ব জুড়ে করোনা সন্ত্রাসে কাঁপছে । এই পরিস্থিতি থেকে রেহাই পাওয়ার কোনো সংকেত পাওয়া যাচ্ছে না । এমন অবস্থায় করোনা সংক্রমণের চেনটা ভাঙতে উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্র সরকার । ২২ মার্চ জনতা কারফিউয়ের ডাক দেওয়ার দিনেই সমগ্র দেশজুড়ে কার্যত লকডাউন করে দিল কেন্দ্র সরকার । আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত দেশে সব ধরনের যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে রেলমন্ত্রক। ২২ মার্চ রাত পর্যন্ত গুটি কয়েক লোকাল ও কলকাতা মেট্রো চললেও সোমবার থেকে সেগুলিও বন্ধ করে দেওয়া হবে। তবে, পণ্যবাহী ট্রেন চলাচল করবে। রেল বোর্ডের তরফে এমনটাই জানানো হয়েছে।

সংক্রমণের মোকাবিলায় রবিবার দেশজুড়ে চলছে জনতা কার্ফু। যার জেরে এদিন সব প্যাসেঞ্জার ট্রেন বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। বাতিলের তালিকায় রয়েছে বহু দূরপাল্লার ট্রেনও। লোকাল ট্রেনের সংখ্যাও উল্লেখযোগ্যহারে কমানো হয়েছে। শুধুমাত্র দূরপাল্লার যেসব ট্রেন যাত্রা পথে রয়েছে সেগুলোই রবিবার চলেছে। মেট্রোর চলছে অন্যান্য দিনের থেকে কম। ফলে যাত্রীবাহী ট্রেন যে বন্ধ করা হতে পারে তার আগাম আভাস মিলেছিল।

আগেই দূরপাল্লার ট্রেন বন্ধের দাবি তুলেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর অভিযোগ, করোনা আক্রান্ত বেশ কয়েকটি রাজ্য থেকে বাংলায় যাত্রীবাহী ট্রেন প্রবেশ করছে। তাদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা না করেই এরাজ্যে পাঠানো হচ্ছে লোকজনকে। বার বার বলা সত্ত্বেও ট্রেন চলাচলে লাগামও টানা হয়নি। যার ফলে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে। তাই দূরপাল্লার ট্রেন বন্ধের দাবি করেন মুখ্যমন্ত্রী। বিদেশিদের মতো ভিন রাজ্য থেকে আসা লোকজনকেও ১৪দিন বাড়ির বাইরে না বেরোতে আর্জি জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। কেন্দ্রের বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ তুলে হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেছিলেন, ‘ট্রেন বন্ধের দাবি না শুনলে রাজ্যের বাইরে ট্রেন আটকে দেওয়া হবে।’

এদিকে জনতা কার্ফুর মধ্যেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া। এখনও পর্যন্ত ভারতে কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়েছেন ৩৪১ জন। এদিন করোনাভাইরাসে তিন’জনের মৃত্যু হয়েছে। মারণ ভাইরাসে দেশে এখনও পর্যন্ত মৃত্যু সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment