দেশ 

‘‘পিএমসি ব্যাঙ্ক, ইয়েস ব্যাঙ্ক হল, এরপর কোন ব্যাঙ্কের পালা?” প্রশ্ন পি.চিদম্বরমের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : ইয়েস ব্যাঙ্ক নিয়ে গতকালই আরবিআই নির্দেশ জারি করে বলেছিল ৫০ হাজার টাকার বেশি গ্রাহক তুলতে পারবে না । এরপরেই আজ এই ব্যাঙ্কে শেয়ার অনেকটা কমে যায় । এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে আবার সরব হলেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি. চিদম্বরম ।
শুক্রবার টুইট করে তিনি বলেন, “৬ বছর ধরে বিজেপি ক্ষমতায় আছে। কী ভাবে দেশের আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে পরিচালনা করছে তা দেখাই যাচ্ছে! প্রথমে পিএমসি ব্যাঙ্ক। এ বার ইয়েস ব্যাঙ্ক। সরকার কি এ সব নিয়ে আদৌ ভাবিত নয়?” সরকারকে তীব্র আক্রমণ করে চিদম্বরম আরও বলেন, “যা হচ্ছে তার দায় কি সরকার অস্বীকার করতে পারবে? পিএমসি ব্যাঙ্ক, ইয়েস ব্যাঙ্ক হল, এ পর কোন ব্যাঙ্কের পালা?”
ইয়েস ব্যাঙ্ক নিয়ে সরকারকে আক্রমণের পাশাপাশি এই সঙ্কটময় পরিস্থিতি থেকে মুক্তির উপায়ও বাতলেছেন চিদম্বরম। তিনি বলেন, “এক টাকায় ইয়েস ব্যাঙ্কের ঋণের বই কিনে নেওয়া উচিত স্টেট ব্যাঙ্কের। পাশাপাশি, ঋণগুলো উদ্ধার করে আমানতকারীদের আশ্বস্ত করা যে তাঁদের টাকা সুরক্ষিত থাকবে। এবং ফেরতও দেওয়া হবে।”

সূত্রের খবর, কেন্দ্র চাইছে স্টেট ব্যাঙ্ক ও এলআইসি মিলে ইয়েস ব্যাঙ্কের মোট ৪৯% অংশীদারি হাতে নিক। সেই এলআইসি, যাদের কাঁধে এর আগে লোকসানে ডোবা আইডিবিআই ব্যাঙ্ককেও চাপানো হয়। ফলে প্রশ্ন উঠেছে, সংস্থায় পলিসিহোল্ডারদের টাকার সুরক্ষা নিয়ে। যদিও শুক্রবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন বলেন, ‘‘আমানতকারীদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই। তাঁদের যাবতীয় আমানত সুরক্ষিত থাকবে।’’


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment