দেশ 

লখনউয়ে ছাত্র খুনের অভিযোগে প্রাক্তন বিএসপি বিধায়কের পুত্রকে গ্রেফতার করল পুলিশ , সিসিটিভি ফুটেজ দেখে চিহ্নিত অভিযুক্ত

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : উত্তরপ্রদেশের লখনউ-এ ছাত্র খুনে অভিযুক্তকে ২৪ ঘন্টা্র মধ্যে গ্রেফতার করল পুলিশ । জানা গেছে , সিসিটিভির ফুটেজ দেখে অভিযুক্তকে চিহ্নিত করেছে পুলিশ । অভিযুক্ত উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন বিএসপি বিধায়কের পুত্র বলে জানা গেছে ।বৃহস্পতিবার বিকেলে ঘটনার পরেই পুলিশ জানিয়েছিল, খুনের পিছনে ব্যক্তিগত শত্রুতা থাকতে পারে। আমন বাহাদুরকে গ্রেফতারের পর সেই বিষয়টিই আরও স্পষ্ট হয়।

গতকাল বিকেলে লখনউয়ের গোমতীনগরে  এক আত্মীয়ের বাড়িয়ে যাচ্ছিলেন প্রশান্ত সিংহ (২৩) কিন্তু ওই আত্মীয়ের আবাসনে ঢোকার মুখেই খুন হন লখনউয়ের একটি অভিজাত ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের ছাত্র প্রশান্ত সিংহ (২৩)। ওই আবাসনের সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, বাইকে করে আসা কয়েক জন যুবক একটি গাড়ি থামায়। তার পর গাড়ির কাচ ভেঙে ভিতরে থাকা আরোহীকে পর পর ছুরি মেরে পালিয়ে যাচ্ছে। আততায়ীরা পালিয়ে যাওয়ার পর আক্রান্ত যুবক (প্রশান্ত) গাড়ি থেকে বেরিয়ে বুকে হাত চাপা দিয়ে দৌড়ে আবাসনের ভিতরে ঢুকে যান।

পুলিশ জানিয়েছে, প্রশান্তর বাড়ি বারাণসীতে। লখনউয়ে থেকে পড়াশোনা করছিলেন তিনি। গতকাল গোমতীনগরের ওই আবাসনে ঢোকার আগেই তাঁর উপর হামলা হয়। আততায়ীরা পালানোর পর প্রশান্ত গাড়ি থেকে বেরিয়ে দৌড়ে ভিতরে ঢোকার চেষ্টা করলেও পারেননি। সিঁড়িতেই পড়ে যান প্রশান্ত। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে তাঁকে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করে। কিন্তু চিকিৎসা চলাকালীনই অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণে মৃত্যু হয় প্রশান্তের।

ঘটনার তদন্তে নেমে ওই আবাসনের সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে পুলিশ। পাশপাশি প্রশান্তের বন্ধুদেরও জিজ্ঞাসাবাদ করে। তাঁদের কাছ থেকেই পুলিশ জানতে পারে, বুধবার রাতে কলেজেরই কিছু জুনিয়র পড়ুয়ার সঙ্গে তাঁর ঝগড়া হয়েছিল। বারাবাঁকি জেলায় এক বন্ধুর জন্মদিন উদযাপনে গিয়ে গন্ডগোলের সূত্রপাত। তার জেরেই এই খুন বলে মনে করছেন তদন্তকারী আধিকারিকরা।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment