কলকাতা 

পুলিশ হেফাজতে মৃত্যুকে ঘিরে ভাঙচুর সিঁথি থানা

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : থানার মধ্যে পুলিশের মারেই মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগে সোমবার সন্ধ্যায় রণক্ষেত্রের চেহারা নিল উত্তর কলকাতা সিঁথি থানা।উত্তেজিত জনতা থানায় ঢুকে এলোপাথাড়ি ভাঙচুর চালায়। তাঁদের রোষে পড়েন থানার কর্মীরাও।প্রাথমিক ভাবে জানা গিয়েছে, একটি চুরির তদন্তে এক ব্যক্তিকে থানায় ডাকা হয় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য। অভিযোগ, রাজ কুমার সাউ নামে ওই ব্যক্তির বাড়ি ওই এলাকাতেই। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, চুরির ঘটনায় মূল অভিযুক্তকে পাকড়াও করা হলে জেরার মুখে রাজকুমারের নাম বলে ওই অভিযুক্ত। পুলিশের দাবি, অভিযুক্ত দাবি করেছিল চোরাই মাল তিনি ওই ব্যক্তিকেই বিক্রি করেছিলেন।

সেই ভিত্তিতেই জেরার জন্য থানায় ডাকা হয় তাঁকে। পুলিশ কর্মীদের একাংশের দাবি, জেরা চলাকালীন হঠাৎ অসুস্থ বোধ করেন রাজকুমার সাউ। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে আর জি কর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা

মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়তেই রাজকুমারের পরিবারের লোকজন এবং এলাকার বাসিন্দারা জমায়েত হন থানার সামনে। তাঁদের অভিযোগ পুলিশের মারেই মৃত্যু হয়েছে রাজকুমারের। ওই জমায়েত থেকেই একটি অংশ হঠাৎ করে মারমুখী হয়ে ওঠেন এবং থানার মধ্যে ঢুকে ভাঙচুর শুরু করেন। পরিস্থিতি সামাল দিতে বড় পুলিশ বাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন ডিসি(উত্তর) জয়িতা বসু। এখনও পুলিশের তরফে গোটা ঘটনা সম্পর্কে কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment