কলকাতা 

বিজেপির নেতা-মন্ত্রীদের উস্কানিতে জামিয়া-শাহিন বাগ শুধু নয় সমগ্র দেশজুড়ে সহিংসতা বৃদ্ধি পেয়েছে : ড. আবদুস সাত্তার

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধি : শনিবার বিকেলে আবার শাহিন বাগে গুলি চলল । দিল্লি পুলিশ যদিও গুলি চালককে গ্রেফতার করেছে । তবে এর রেশ সমগ্র দেশজুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে । তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছে বিজেপি ও হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলি । আজকের হামলার নিন্দা করেছেন প্রদেশ কংগ্রেস সাধারণ সম্পাদক ড. আবদুস সাত্তার । তিনি বলেছেন , বিজেপি বা নরেন্দ্র মোদী দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার পর তিন তালাকের ফৌজদারীকরণ , কাশ্মীরের উপর থেকে ৩৭০ ধারা রদ , সিএএ আইন চালু করে এদেশের মুসলিমদেরকে ব্রাত্য করার বার্তা দিয়েছেন ।

আর সিএএ নিয়ে সাধারণ মানুষ ছাত্র-যুবরা যখন রাস্তায় নেমেছে ঠিক তখনই জামিয়ায় ঢুকে লাইব্রেরি ভেঙেছে দিল্লি পুলিশ , জেএনইউতে হামলা চালিয়েছে মুখোশধারীরা । এবার টার্গেট শাহিন বাগ । স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী থেকে শুরু করে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী-সাংসদরা শাহিন বাগকে কটাক্ষ করেছেন । মন্ত্রী প্রকাশ্যে বলছেন , দেশ কা গদ্দার কো , জনতা বলছে গুলি মারো । আর এই ঘটনার কয়েক দিনের মধ্যেই আমরা দেখলাম জামিয়ার পড়ুয়াদের উপর গুলি চালাতে । দিল্লি পুলিশের সামনে এই ঘটনা ঘটেছে । গান্ধীর হত্যার দিনে এই ঘটনা ঘটেছে । অথচ আমাদের দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একবারও এই ঘটনার নিন্দা করেননি । আর তাতেই দুস্কৃতিরা উৎসাহিত হয়েছে আজ আবার শাহিন বাগে হামলা হয়েছে । তবে আশার কথা এই যে শাহিন বাগকে কেন্দ্র করে সমগ্র দেশজুড়ে আন্দোলন শুরু হয়েছে । আর তাতে বিপদের গন্ধ পেয়ে প্রত্যাঘাত শুরু করেছে হিন্দুত্ববাদীরা । বিজেপির নেতা-মন্ত্রীদের বক্তব্যে আরও উৎসাহিত হয়েছে এরা ।

এক প্রশ্নের উত্তরে আবদুস সাত্তার বলেন , আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ বলেছেন , শাহিন বাগের আন্দোলনকারীদের সঙ্গে তিনি শর্তসাপেক্ষে আলোচনা করতে চান । এটা ভাল কথা । আলোচনা হওয়া উচিত । একদিকে আলোচনার কথা বলা হচ্ছে , অন্যদিকে হিন্দুত্ববাদীরা গুলি চালাচ্ছে , আবার যোগী আদিত্যনাথ শাহিন বাগের মেয়েদেরকে কাশ্মীরের বিচ্ছিন্নতাবাদীদের সঙ্গে তুলনা করছেন । এটা চলতে পারে না । গনতন্ত্রে আন্দোলন হবে সরকারের বিরুদ্ধে । আর সরকারকে তার সমাধান করতে হবে । তিনি এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের সমালোচনা করে বলেন , প্রকাশ্যে দিল্লি নির্বাচনে সাম্প্রদায়িক প্রচার চালাচ্ছেন মন্ত্রী-সাংসদরা তা নিয়ে কোনো তিরস্কার করছে না কমিশন । টি এন শেষন যেমন কড়া পদক্ষেপ নিয়েছিলেন তা আর দেখা যাচ্ছে না ।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment