দেশ 

‘‘আমি কোনও হিংসার ঘটনার সঙ্গে জড়িয়ে পড়িনি। আমার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আগে পুলিশকে প্রমাণ জোগাড় করতে হবে।’’ দিল্লি পুলিশের এফআইআর নিয়ে চ্যালেঞ্জ ঐশী ঘোষের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : মঙ্গলবার জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের সভানেত্রী তথা বাংলার মেধাবী কন্যা ঐশী ঘোষ মুখ খুললেন তাঁর বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া এফআইআর নিয়ে। তিনি এদিন দাবি করেন, তিনি কোনও ভাঙচুরের ঘটনায় জড়িত নন। তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকেই দায়ী করেছেন ঐশী।

রবিবার যখন রক্তাক্ত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন ঐশী ঠিক তখনই কয়েক মিনিটের ব্যবধানে দু’টি এফআইআর দায়ের করে দিল্লি পুলিশ। ক্যাম্পাসে হামলার আগের দিন, অর্থাৎ শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্ভার রুমে ভাঙচুরের অভিযোগে ঐশী-সহ বেশ কয়েক জনের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে। সে ব্যাপারেই ঐশী বলছেন, ‘‘আমি কোনও হিংসার ঘটনার সঙ্গে জড়িয়ে পড়িনি। আমার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আগে পুলিশকে প্রমাণ জোগাড় করতে হবে।’’ তাঁর অভিযোগ, ‘‘কর্তৃপক্ষই গোটা ঘটনাটা সাজিয়েছেন।’’

ভাঙচুর ও রক্ষীদের উপর হামলার অভিযোগ  নিয়ে ঐশী আরও বলছেন, ‘‘সার্ভার রুমে এমন কোনও ঘটনাই ঘটেনি। আমার কাছে ভয়েস মেসেজের প্রমাণ আছে। কল রেকর্ড রয়েছে যে রক্ষীরা সার্ভার রুমে পড়ুয়াদের মারধর করেছিল। এবিভিপি সমর্থকেরা এসেছিল এবং আক্ষরিক অর্থেই সতীশকে গণপিটুনি দিয়েছিল।’’

রবিবার রাতে মুখে কাপড় বাঁধা এক দল যুবক হামলা চালায় বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে। ব্যাপক ভাঙচুরের পাশাপাশি মারধর করা হয় ছাত্রছাত্রীদের। ঘটনায় আহত হন ঐশী ঘোষও। এ ছাড়া মোট ৩৪ জন ওই ঘটনায় আহত হয়েছেন। রবিবারের সেই ঘটনার পরে অবশ্য মঙ্গলবার রাত পর্যন্ত কেউ গ্রেফতার হয়নি।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment