জেলা 

তমলুকে ছাত্রী খুনের ঘটনায় গ্রেপ্তার ১

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ পূর্ব মেদিনীপুরের শহীদ মাতঙ্গীনি ব্লকের চিয়াড়া গ্রামের নবম শ্রেনীর ছাত্রী বনশ্রী ঘোড়ইকে খুনের ঘটনায় মূল অভিযুক্তকে গ্রেফতার করল পুলিশ। আজ হাওড়া জেলার কুলগাছিয়া থেকে তাকে গ্রেফতার করে কোলাঘাট থানার পুলিশ। ধৃতের নাম সেক হামিদুল আলি খান। এর পর থেকেই পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করে। কোলাঘাট থানার ওসি কাশীনাথ চৌধুরীর দাবি ,জেরায় খুনের কথা স্বীকার করেছে হামিদুল। সে জানায়, ঐদিন দুপুরে বনশ্রীর বাড়িতে কেউ না থাকায় তাদের গাছে আম পাড়তে যায়। আম পাড়তে দেখে বনশ্রী প্রতিবাদ করে।এই সময় হামিদুল বনশ্রীকে চড়থাপ্পড় মারে।বাড়ির পাশে একটি ড্রেনে ফেলে দিয়ে ধর্ষন করে।এই সময় মেয়েটি চেঁচামেচি করায় গলা টিপে শ্বাসরোধ করে।জেরাতে আরো জানায় শ্বসরোধ করে মেরে ফেলেও ধর্ষন আবারো করে।এরপর তাকে কিছুটা দূরে খড়পাতা দিয়ে চাপা দিয়ে চলে যায়।এরপরদিন চারিদিকে না পেয়ে পরিবার যখন খোঁজচালাচ্ছিল। সেইসময়ও হামিদুল এলাকায় উপস্থিত ছিল।দ্বিতীয়দিন রাত্রে হামিদুল সেইস্থান থেকে আরোকিছুটা দূরে খড়িবনের জঙ্গলে ফেলেদিয়ে পালিয়ে যায়।এরপর থেকে এলাকায় আর দেখাযায়নি।চারদিনপর দেহ উদ্ধারের পর পুলিশ বিভিন্ন যায়গায় খোঁজচালিয়ে মঙ্গলবার হাওড়া জেলার কুলগাছিয়া এলাকা থেকে কোলাঘাট থানার পুলিশ গ্রেপ্তার করে।বুধবার ধৃতকে তমলুক আদালতে তোলা হবে।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment