জেলা 

হাইমাদ্রাসায় প্রথম স্থানাধিকারী তৌফিকের পড়াশুনার যাবতীয় খরচ বহন করতে ইচ্ছুক গিমাগেড়িয়া হাইমাদ্রাসা

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ হাইমাদ্রাসার ফলাফলে রাজ্যের মধ্যে প্রথম স্থানাধিকারী তৌফিক আনোয়ারের পড়াশুনা, হোস্টেল খরচ সহ যাবতীয় খরচ বহন করতে ইচ্ছুক পূর্ব মেদিনীপুর জেলার কাঁথির গিমাগেড়িয়া ওয়েলফেয়ার হাইমাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ। আজ, এই ইচ্ছার কথা জানিয়েছেন মাদ্রাসার টিচার ইনচার্জ আহমেদ হোসেন শাহ। ইতিমধ্যে মাদ্রাসার তরফে তৌফিকের বাড়িতে এই প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। যদিও তার পরিবারের তরফে এখনই এবিষয়ে সম্মতির কথা জানানো হয়নি। সম্মতির জন্য দিন তিনেক সময় চেয়েছেন পরিবারের লোকজন।

এই বিষয়ে হাইমাদ্রাসার টিচার ইনচার্জ বলেন,  তৌফিক খুব মেধাবী ছেলে। বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম থেকে জানতে পেরেছি, অত্যন্ত দরিদ্র পরিবারের মধ্যে বড় হয়েছেও। বাড়িতে আর্থিক স্বচ্ছলতা না থাকার কারণে অনেক কষ্টের মধ্যে পড়াশুনা করতে হয়েছে। না হলে হয়তো আরও ভালো ফল করতে পারত। একটি ছেলের ভবিষ্যত অনেকটাই নির্ভর করে উচ্চমাধ্যমিকের ফলাফলের উপর। জীবনের এই গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়ে  যাতে ভালো ফল করতে পারে, পড়াশুনায় যাতে কোনও অসুবিধা না হয়, সেজন্যই এই উদ্যোগ নিয়েছি আমরা।

প্রসঙ্গত, এবারের মাদ্রাসা বোর্ডের পরীক্ষায় গিমাগেড়িয়া মাদ্রাসাও দুর্দান্ত ফল করেছে। এই মাদ্রাসার দু’জন ছাত্র সৈয়দ সোনু আলি ও মুহাম্মদ ইউসুফ যথাক্রমে রাজ্যের প্রথম দশের মধ্যে চতুর্থ ও নবম স্থান অধিকার করেছে। এছাড়া ৬১ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ৯০ শতাংশের উপর নম্বর পেয়েছে ৭ জন। ৭০ শতাংশের উপর নম্বর পেয়েছে ২৯ জন। বাকি বেশিরভাগই প্রথম বিভাগে উত্তীর্ণ হয়েছে।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment