দেশ 

জম্মু-কাশ্মীরে আংশিকভাবে চালু হলে ইন্টারনেট ও টেলি যোগাযোগ ব্যবস্থা , ৭০ জন বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতাকে আগ্রায় নিয়ে আসা হল , সোমবার ঈদ উপলক্ষে বিশেষ ছাড় থাকবে

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : জম্মুার দিন শুক্রবার এবং সোমবার ঈদ-উল আযহা উপলক্ষে জম্মু-কাশ্মীরে আংশিকভাবে চালু করা হল ইন্টারন্টে ও টেলি-সংযোগ।স্থানীয় মানুষ যাতে নির্বিঘ্নে শুক্রবারের প্রার্থনা সারতে পারেন সেই জন্যেও থাকছে ব্যবস্থা। যদিও এখনই বাড়তি সেনা সরানো হচ্ছে না। থাকছে কার্ফুও।

সোমবার ঈদ-উল-আযহা। বৃহস্পতিবার নিজের ভাষণে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আশ্বস্ত করেছেন বাইরে থাকা কাশ্মীরিরা যাতে ইদের আগে ঘরে ফিরতে পারেন সে ব্যাপারে পদক্ষেপ করবে কেন্দ্র। রাজ্যপাল সত্যপাল সিংহও বৃহস্পতিবারই পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে রিপোর্ট দেন। বলেন, নিরাপত্তার কড়াকড়ি শিথিল করা যেতে পারে এবার।

সব মিলিয়ে তাই শুক্রবারের প্রার্থনাকেই পরীক্ষামূলক ভাবে বেছে নিল কেন্দ্র। সূত্রের খবর, ‌শুক্রবার দিনটা নির্বিঘ্নে কাটলে বিধিনিষেধ আরও একটু শিথিল হবে উপত্যকায়।

এদিন শ্রীনগরের প্রধান প্রার্থনাস্থল জামা মসজিদ বন্ধ থাকলেও বিভিন্ন এলাকার ছোট মসজিদগুলি খুলে দেওয়া হয়েছে সাধারণ মানুষের জন্যে। জম্মু কাশ্মীর পুলিশের প্রধান দিলবাগ সিংহ সংবাদ সংস্থাকে জানাচ্ছেন, ‘‘কাশ্মীরবাসী প্রতিবেশীদের সঙ্গে প্রার্থনায় যোগ দিতে পারেন। এই ব্যাপারে কোনও বাধা নেই। তবে নিজের এলাকার বাইরে না বেরনোর পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে উপত্যকার মানুষকে।’’

ইদের আগে উপত্যকায় কোনও রকম অশান্তি চায় না কেন্দ্র। আবার এলাকাবাসীর ধর্মীয় ভাবাবেগ যাতে কোনও ভাবে ক্ষুণ্ণ না হয়, সেই বিষয়টিকেও মাথায় রাখতে হচ্ছে। সেই কারণে, কোনও রকম অশান্তির উস্কানি এড়াতে এখনই প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহেবুবা মুফতি বা ওমর আবদুল্লাকে গৃহবন্দি রাখার সিদ্ধান্তেই অনড় থাকছে কেন্দ্র। এর পাশাপাশি ৭০ জন বিচ্ছিন্নতাদীকে ভারতীয় বায়ুসেনার বিশেষ বিমানে করে আগ্রার কেন্দ্রীয় কারাগারে নিয়ে আসা হয়েছে।

তুমুল সতর্কতার মধ্যেও বিক্ষোভ পুরোপুরি এড়ানো যায়নি। পুলিশ জনতা খণ্ডযুদ্ধ বেধেছে শ্রীনগরেই। ইদের আগে এই ছবিটা বদলের জন্যে আপাতত কেন্দ্র বহিরাগত ইন্ধন রুখতে তৎপর।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment