আন্তর্জাতিক 

অবৈধভাবে ভারতে ঢুকতে গিয়ে আটক মালদ্বীপের প্রাক্তন উপ-রাষ্ট্রপতি ; ফেরত পাঠানো হল তাঁর দেশে

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক :  বৈধ নথিপত্র ছাড়া সমুদ্র পথে মালদ্বীপের প্রাক্তন উপরাষ্ট্রপতি আহমেদ আদিব আবদুল গফুর তামিলনাড়ু এসে আশ্রয় নেওয়ার চেষ্টা করেন । কিন্ত বৈধ নথিপত্র না থাকার কারণে তাঁকে মালদ্বীপে ফেরত পাঠায় ভারত । গত ১ আগষ্ট তিনি তামিলনাড়ু হয়ে সমুদ্র পথে এদেশে ঢুকে পড়েন । কিন্ত তামিলনাড়ু পুলিশ তাকে আটক করে । বৈধ কাগজপত্র না থাকার কারণে তাকে সেদেশে ফেরত পাঠানো হয় ।

তামিলনাড়ু পুলিশ জানিয়েছে, ভারতে ঢোকার জন্য ভার্গো-৯ নামে একটি মালবাহী জাহাজের সাহায্য নেন গফুর। তাতে চেপেই তুতিকোরিন পৌঁছতেই পুলিশের হাতে ধরা পড়েন তিনি। পুলিশ সূত্রে খবর, গফুরের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে। মলদ্বীপে তাঁর বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি মামলাও চলছে। প্রাণ সংশয়ের কথা উল্লেখ করে ভারতে আশ্রয়ের আর্জি জানিয়েছিলেন গফুর। কিন্তু তা খারিজ করে দেয় সরকার। তার পরই গফুর অবৈধ ভাবে ভারতে ঢোকার চেষ্টা করেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

গফুর আটক হওয়ার পরেই ভারতীয় বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র রবীশ কুমার জানান, জলপথে ভারতে আসার জন্য নির্দিষ্ট কয়েকটি প্রবেশপথ রয়েছে। ওই পথে বিদেশিরা ভারতে আসতে পারে। কিন্তু ওই পথ দিয়ে আসতে গেলেও বৈধ কাগজপত্র এবং অনুমতির প্রয়োজন হয়। কিন্তু গফুর সেই নির্দিষ্ট পথ ধরে না এসে অবৈধ ভাবে এ দেশে ঢোকার চেষ্টা করেন। শুধু তাই নয়, তাঁর কাছে কোনও বৈধ কাগজপত্রও ছিল না। গফুর আটক হওয়ার দিনই মলদ্বীপ পুলিশ এক বিবৃতি প্রকাশ করে জানায়, তাঁকে দেশে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চালানো হচ্ছে। এর পরই শনিবার গফুরকে মলদ্বীপে ফেরত পাঠানো হয়।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment