কলকাতা 

দীর্ঘ আন্দোলনের জয় ! এমএসকে ও এসএসকে-তে কর্মরতদের একলপ্তে শুধু বেতন বৃদ্ধিই করেননি একইসঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ কী সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মমতার সরকার জানতে চান ? ক্লিক করুন

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক :  এমএসকে ও এসএসকে-র শিক্ষকদের দীর্ঘদিন আন্দোলনের ফলে রাজ্য সরকার বাধ্য হল তাদের বেতন এক লপ্তে অনেকটাই বাড়াতে । প্রাথমিক শিক্ষক-শিক্ষিকাদের পর এতটা বেতন একমাত্র এসএসকে ও এমএসকের শিক্ষকদেরই হল । শুধু বেতন বৃদ্ধি নয় , বাড়ল তাঁদের পদমর্যাদাও । এতদিন এসএসকে ও এমএসকে-র শিক্ষকদের সহায়ক বা সম্প্রসারক বলা হত । এতদিন তাঁরা পঞ্চায়েত দফতরের অধীনে ছিলেন । এবার থেকে তাঁরা শিক্ষা দফতরে অধীনে এলেন এবং শিক্ষকের মর্যাদা পেলেন । এটা ছিল এমএসকে ও এসএসকে-র শিক্ষকদের দীর্ঘদিনের দাবি । আজ সোমবার শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় তাঁদের বেতন ও পদ মর্যাদা বৃদ্ধির কথা সাংবাদিকদের কাছে ঘোষণা করেন ।

শিক্ষামন্ত্রীর ঘোষণা মত এতদিন এসএসকের শিক্ষকরা পেতেন ৫,৯৫৪ টাকা। এবার থেকে এসএসকে-র শিক্ষকরা  ১০ হাজার ৩৪০ টাকা মাসিক বেতন পাবেন। অর্থাৎ এসএসকে-র শিক্ষকদের বেতন বাড়ছে এক লাফে চার হাজার টাকা, যা প্রায় দ্বিগুণ।
আর এমএসকে-র শিক্ষকদের বেতনও বাড়ছে। তাঁরা পেতেন ৮৯০০ টাকা। সেই টাকা বেড়ে হচ্ছে ১৩ হাজার টাকা। এমএসকে প্রধানরা পাবেন ১৪ হাজার টাকা। দীর্ঘ আন্দোলনের পর এসএসকে ও এমএসকে শিক্ষকদের দাবি মিটল। রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্তে খুশি তাঁরা।


শিক্ষামন্ত্রীর বিশেষ ঘোষণা, এসএসকে-এমএসকে সদস্যরা এবার শিক্ষক বা শিক্ষিকার মর্যাদা পাচ্ছেন। এতদিন তাঁরা সম্প্রসারক বা সহায়ক হিসেবে পরিচিত হতেন। এবার থেকে তাঁরা হলেন শিক্ষক-শিক্ষিকা।

এমএসকে ও এসএসকে-তে কর্মরতদের শিক্ষক-শিক্ষিকার মর্যাদা দেওয়ায় রাজ্য সরকারের প্রতি এই পর্যায়ের শিক্ষকদের মধ্যে খুশির জোয়ার লক্ষ্য করা গেছে । মইদুল ইসলামের নেতৃত্বে শিক্ষক ঐক্য মঞ্চে ব্যানারে দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন চলছিল শিক্ষকের মর্যাদা ও বেতন বৃদ্ধির দাবিতে । এই দুটি দাবিই আজ সরকার মেনে নিল।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment