কলকাতা 

কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ করায় প্রমোটারের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা দায়ের করলেন সাংসদ শান্তনু সেন

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : সরাসরি সাংবাদিক সম্মেলন করে কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ করেছিলেন উত্তর কলকাতার এক প্রোমাটার । আর কাটমানি নেওয়ার অভিযোগের তীর ছিল রাজ্যসভার সাংসদ ডা. শান্তনু সেনের বিরুদ্ধে । সেই শান্তনু সেন তখনই বলেছিলেন তিনি মানহানি মামলা করবেন। সেই অভিযোগকারী প্রোমোটারের বিরুদ্ধে মানহানি ও ফৌজদারী মামলা করেছেন ডা. শান্তনু সেন ।

তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদ তথা কলকাতা পুরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর শান্তনু জানিয়েছেন, কলকাতা হাইকোর্টে ১০ কোটি টাকার মানহানির মামলা করেছেন তিনি। শিয়ালদহ আদালতে ঠুকেছেন ফৌজদারি মানহানির নালিশ।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কাটমানি ও তোলাবাজির বিরুদ্ধে সরব হওয়ার পরেই সিথিঁর প্রোমোটার সুমন্ত্র চৌধুরি সরাসরি সাংসদ ও কলকাতার ৩ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলার ডা. শান্তনু সেনের বিরুদ্ধে কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ করেছিলেন । তাঁর দাবি ছিল, ২০১২ সাল থেকে শুরু করে দফায় দফায় এখনও পর্যন্ত তিনি ৪০ থেকে ৪২ লক্ষ টাকা ‘তোলা’ দিয়েছেন শান্তনু সেনকে। শান্তনু সেন বর্তমানে কলকাতা পুরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর। তবে তার আগে পর্যন্ত ছিলেন ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর। প্রোমোটার নান্তির অভিযোগ, ২ নম্বর ওয়ার্ডে থাকাকালীনই তাঁর কাছ থেকে দফায় দফায় তোলা আদায় করতেন। কিন্তু এত দিন ভয়ে কিছু বলতে পারেননি। এখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কাটমানি নিয়ে চরম বার্তা দেওয়ায় তিনি অভিযোগ প্রকাশ্যে আনার সাহস পেয়েছেন বলেও উল্লেখ করেন নান্তি।

সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই এ বার কলকাতা হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেছেন চিকিৎসক সাংসদ শান্তনু। সাংসদের অভিযোগ, ‘‘নির্দিষ্ট উদ্দেশ্য নিয়ে আমার ভাবমুর্তি খারাপ করতেই ওই প্রোমোটার আমার বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ এনেছেন।’’

 

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment