দেশ 

মন্ত্রীসভার আটটি কমিটিতে অমিত শাহকে স্থান দিয়ে কী বার্তা দিলেন মোদী ? জানতে হলে ক্লিক করুন

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : ফলাও করে যতই প্রচার করা হোক না কেন কেন্দ্রে এখন এনডিএ সরকার ; কিন্ত বাস্তব সত্য হল কেন্দ্রে এখন মোদী ও অমিত শাহ-র সরকার । বিরোধীদের এই অভিযোগ আবার সত্য বলে প্রমাণিত হল। গতকাল কেন্দ্রে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার পর মোদী সরকার নতুন করে মন্ত্রীসভা পরিচালনা করার জন্য কমিটি গঠন করেছে । সেই কমিটির প্রতিটিতেই অমিত শাহকে রাখা হয়েছে । অথচ দলের প্রবীণ নেতা ও অভিঞ্জ মন্ত্রী রাজনাথ সিংকে দুটি কমিটি থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে । এমনকি রাজনীতি বিষয়ক কমিটি থেকেও বাদ রাখা হয়েছে তাঁকে । যা নিয়ে ভারতীয় রাজনীতি চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে । অথচ অমিত শাহ প্রথমবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভায় সদস্য হয়েই আটটি কমিটিতে ঠাঁই পেয়েছেন।

ক্যাবিনেটের গুরুত্বপূর্ণ ওই ৮টি কমিটির মধ্যে ৬টির শীর্ষে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ফলে, অঘোষিত থেকে অম়িত ঘোষিত দুনম্বর হয়ে গেলেন দ্বিতীয় মোদী মন্ত্রিসভায়, এমনটাই বলছে রাজনৈতিক মহল।

বুধবার এক সরকারি বিজ্ঞপ্তিতে কথা জানানো হয়েছে। বলা হয়েছে, ক্যাবিনেটের ওই ৮টি কমিটিই ঢেলে সাজানো হয়েছে। অমিতের নাম রয়েছে নতুন ৮টি কমিটিতে। প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিংহ রয়েছেন ৬টি কমিটিতে। কেন্দ্রীয় ক্যাবিনেটের ওই গুরুত্বপূর্ণ কমিটিগুলির মধ্যে রয়েছে, নিয়োগ কমিটি, স্থান নির্ধারণ কমিটি, অর্থনৈতিক বিষয় সংক্রান্ত কমিটি, সংসদ বিষয়ক কমিটি, রাজনীতি বিষয়ক কমিটি, নিরাপত্তা বিষয়ক কমিটি, বিনিয়োগ বৃদ্ধি সংক্রান্ত কমিটি এবং চাকরি দক্ষতা উন্নয়ন সংক্রান্ত কমিটি।

গত বছরে যিনি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের দায়িত্ব সামলেছেন আর প্রধানমন্ত্রী মোদীর অনুপস্থিতিতে কার্যত দ্বিতীয় ব্যক্তির ভূমিকা পালন করেছেন মন্ত্রিসভার বৈঠকগুলিতে, সেই বর্ষীয়ান রাজনাথ সিংহ বার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক পাননি। তাঁকে দেওয়া হয়েছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের দায়িত্ব। কিন্তু তাঁকে ক্যাবিনেটের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ রাজনীতি বিষয়ক কমিটি থেকে বার বাদ দেওয়া হয়েছে। তবে তাঁর গুরুত্বকে যে একেবারেই কমিয়ে দেওয়া হয়েছে বার ক্যাবিনেট কমিটিগুলির রদবদলে, তা অবশ্য নয়। রাজনাথকে ক্যাবিনেটের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অর্থনীতি বিষয়ক কমিটির সদস্য করা হয়েছে।

ক্যাবিনেটের নতুন রাজনীতি বিষয়ক কমিটির সদস্য করা হয়েছে নিতিন গডকড়ী, নির্মলা সীতারামন, রামবিলাস পাসোয়ান, নরেন্দ্র তোমর, রবিশঙ্কর প্রসাদ, হর্ষ বর্ধন, পীযূষ গয়াল, অরবিন্দ সাবন্ত, প্রহ্লাদ জোশী, হরসিমরাত কউর বাদলকে।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন , আগামী দিনে দেশে যে নরেন্দ্র মোদী ও অমিত শাহ-র রাজ শুরু হল তা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই । আটটি কমিটিতেই অমিত শাহকে নিয়ে মন্ত্রীসভা তো বটেই দেশের প্রশাসনকে মোদী বার্তা দিলেন তার পরে সবচেয়ে ক্ষমতাশীল ব্যক্তি হলেন অমিত শাহ ।

 

 

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment