জেলা 

ভোট পরবর্তী সন্ত্রাসে উত্তপ্ত বীরভূম ; বিজেপির পোলিং এজেন্টের আঙুল কেটে নেওয়ার অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : ভোট পরবর্তী সন্ত্রাসে তৃণমূল-বিজেপি সংঘর্ষে রণক্ষেত্রের চেহারা নিল বীরভূমের মল্লারপুর। বিজেপির পোলিং এজেন্টের আঙুল কেটে নেওয়ার অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে। আরও এক বিজেপি সমর্থককে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করার অভিযোগ উঠেছে।

অন্যদিকে, এ ঘটনার প্রতিবাদে তৃণমূল নেতার বাড়িতে পাল্টা হামলার অভিযোগ উঠেছে বিজেপির বিরুদ্ধে। স্থানীয় এক তৃণমূল নেতার বাড়িতে ভাঙচুর চালানোর অভিযোগ উঠেছে বিজেপির বিরুদ্ধে। তৃণমূলের পতাকা-ফেস্টুন পোড়ানোরও অভিযোগ উঠেছে । সংঘর্ষ স্থলে পুলিশ গেলে তাদেরকে  বিক্ষোভ দেখাতে থাকে মানুষ ।পরে অভিযুক্ত তৃণমূল নেতাকে আটক করে পুলিশ।

মল্লারপুরের পাশাপাশি ভোট পরবর্তী হিংসায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে সিউড়িতে। তৃণমূলের নির্বাচনী কার্যালয়ে ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে বিজেপির বিরুদ্ধে। অন্যদিকে, দুবরাজপুরের কুখুটিয়া গ্রামে এদিন সকালে প্রচুর পরিমাণে বোমা মিলেছে খবর। প্রসঙ্গত, গতকাল দুবরাজপুরের একটি বুথে মোবাইল ফোন জমা রাখা ঘিরে ভোটারদের একাংশের সঙ্গে কেন্দ্রীয় বাহিনীর বচসা বাধে। পরে পরিস্থিতি সামলাতে শূন্যে গুলি চালায় বলে অভিযোগ উঠেছে কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে। বুথের মধ্যে কীভাবে গুলি চালালো বাহিনী, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন স্বয়ং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment