জেলা 

নদীয়া জেলার ইভিএম ও ভিভিপ্যাটের দায়িত্বশীল নোডাল অফিসারকে দুদিন ধরে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না ; নিখোঁজের সন্ধানে পুলিশের দ্বারস্থ স্ত্রী

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভোট কর্মী রাজকুমার দত্তের পর এবার নদীয় জেলার নির্বাচনের নোডাল অফিসারকে বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না । তিনি জেলার সব ইভিএম ও ভিভিপ্যাট তাঁর দায়িত্বেই ছিল বলে জানা গেছে ।   নদিয়ার নোডাল অফিসারের নাম  অর্ণব রায়।

সংবাদ সংস্থার খবর অনুযায়ী জানা গেছে নির্বাচনী ডিউটিতে রোজকারের মতো বৃহস্পতিবার সকালেও বীপ্রদাস পালচৌধুরী পলিটেকনিক কলেজে গিয়েছিলেন অর্ণব রায়। এদিন দুপুরে খাওয়ার পর তাঁকে আর দেখা যায়নি। তিনি যে গাড়িটি ব্যবহার করতেন সেটিও রয়েছে। গাড়ির চালকের কাছে অর্ণবের কোনও খবর নেই।

এদিকে অর্ণব রায়ের সহকর্মীদের বক্তব্য, বহু জায়গায় খুঁজেও অর্ণব রায়ের কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি । তাঁর  দুটি মোবাইলও সুইচড অফ দেখাচ্ছে।

উল্লেখ্য, নদিয়ার সব বুথের ইভিএম ও ভিভিপ্যাটের দায়িত্বে ছিলেন অর্ণব। আগামী ২৯ এপ্রিল সেখানে ভোট। ফলে এনিয়ে সমস্যায় পড়েছে জেলা প্রশাসন।

এদিকে, অর্ণব রায়ের খোঁজ না মেলায়, বৃহস্পতিবার রাত বারোটার পর অর্ণব রায়ের স্ত্রীকে নিয়ে কোতয়ালি থানায় যান জেলার এসপি ও জেলাশাসক। সেখানে তাঁরা একটি নিখোঁজ ডাইরি করেন। জেলাশাসক জানিয়েছেন, অর্ণবের জন্য একটি মিসিং ডাইরি করা হয়েছে। পুলিস এনিয়ে তদন্ত করছে।

প্রশ্ন রাজ্যের এক জেলার নির্বাচনী কাজের সঙ্গে যুক্ত নোডাল অফিসার কীভাবে উদাও হয়ে যান ? প্রশাসন এবং নির্বাচন কমিশন এ ব্যাপারে কী করছে ? নোডাল অফিসারে পরিনতি যদি এই হয় তাহলে জেলার ভোটারদের অবস্থা কী তা সহজেয় অনুমেয় ।

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment