কলকাতা 

গুরুং-রোশনদের নিরাপত্তা বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার ভার শীর্ষ আদালত কলকাতা হাইকোর্টকে দিল ; চার দিনের মধ্যে সিদ্ধান্ত নেওয়ার নির্দেশ

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক: সুপ্রিম কোর্টে ধাক্কা খেলেন বিমল গুরুং এবং রোশন গিরি। এই দুই নেতাকেনিরাপত্তাদেওয়ার আবেদন খারিজ করে দিয়ে শীর্ষ আদালত মামলাটি কলকাতা হাইকোর্টের কাছে পাঠিয়ে দিয়েছে।

লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থী হয়ে প্রচারে অনুমতি চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন বিমল গুরুং রোশন গিরি। ভোটে অংশগ্রহণ করতে শীর্ষ আদালতের কাছে তিন সপ্তাহের জন্য অন্তবর্তী নিরাপত্তার দাবি মঞ্জুরের আর্জি জানিয়েছিলেন তাঁরা। সেই আবেদনের প্রেক্ষিতেই দিন মামলাটি সুপ্রিম কোর্টে ওঠে।

কিন্তু বিচারপতি অরুণ মিশ্র বিচারপতি নবীন সিংহর বেঞ্চ গুরুংদের আবেদন খারিজ করে দিয়ে মামলাটি ফিরিয়ে দেন কলকাতা হাইকোর্টে। আগামী চার দিনের মধ্যে হাইকোর্টে আবেদন করার জন্য গুরুংদের নির্দেশ দিয়েছে শীর্ষ আদালত।

মামলাটির দ্রুত নিষ্পত্তি করতে হাইকোর্টকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তবে মামলাটি মিটে না যাওয়া পর্যন্ত নির্বাচনের ব্যাপারে গুরুংরোশনরা কোনো রকম নির্বাচনী পদক্ষেপ করতে পারবেন না বলে জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য ইউএপিএ মামলায় তাঁর ওপরে গ্রেফতারি পরোয়ানা ঝুলছে বলে প্রকাশ্যে আসতে পারছেন না গুরুং। কিন্তু তিনি ভালো করেই জানেন, প্রচারে না যেতে পারলে, বিজেপি প্রার্থীর পক্ষে একা ম্যাচ বের করা খুব কঠিন হবে। সে ক্ষেত্রে আরও শক্ত হবে বিনয়পন্থী মোর্চা শিবিরের হাত। ১৮ এপ্রিল পাহাড়ে ভোট। সেই কারণেই তিন সপ্তাহের মঞ্জুরি চেয়ে আবেদন করেছিলেন গুরুংরা।

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment