জেলা 

জঙ্গল মহলে শান্তি ফিরিয়েছেন তিনি-ই দাবি ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী এবং জেলার প্রাক্তন এসপি ভারতী ঘোষের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : জেলার এসপি থাকাকালীন সময়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে জঙ্গলমহলের মা বলে সম্বোধন করেছিলেন । সময় পাল্টে গেছে । এখন তিনি আর জেলার এসপি নন , বিজেপির প্রার্থী হিসেবে মানুষের দরবারে যাচ্ছেন এক সময়কার মমতার চোখের মণি ভারতী ঘোষ। প্রচারে তাঁর মূল টার্গেটও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় । তাই তিনি অবলীলায় বলছেন  “মুখ্যমন্ত্রী আমায় কিছু দেননি। আমিই মুখ্যমন্ত্রীকে সব দিয়েছি।”

তিনি বলেন, ”মুখ্যমন্ত্রী আমায় কিছু দেয়নি, আমিই মুখ্যমন্ত্রীকে দিয়েছি। জঙ্গলমহলে শান্তি ফিরিয়ে দিয়েছি আমি। মাওবাদীদের মূলস্রোতে ফিরিয়ে হাজার হাজার ল্যান্ডমাইন নিষ্ক্রিয় করে মুখ্যমন্ত্রীকে শান্তির জঙ্গলমহল দিয়েছি আমি।”

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বারবার জঙ্গলমহল সফরে এসে দাবি করেছেন, অশান্ত জঙ্গলমহলে ক্ষমতায় এসে তিনি ও তাঁর সরকার শান্তি ফিরিয়ে এনেছেন। মুখ্যমন্ত্রীর এই দাবিকে নস্যাৎ করে দিয়েছেন ভারতী ঘোষ। আর তা কেন্দ্র করে রাজনৈতিক মহলে বেশ কিছু প্রশ্ন উঠছে।  এবার কি তবে জঙ্গলমহলে শান্তি ফেরানোকে হাতিয়ার করেই ভোটের ময়দানে লড়বেন প্রাক্তন এই আইপিএস।

এদিন একসময়ের ‘মা’ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্পর্কে একাধিক অভিযোগ করতে শোনা যায় তাঁকে। তিনি বলেন, ”মুখ্যমন্ত্রী দিয়েছেন বঞ্চনা, বিজেপিতে যাতে না ঢুকতে পারি তার চেষ্টা করেছেন।”
যদিও তৃণমূলের জেলা সভাপতি অজিত মাইতির পাল্টা কটাক্ষ, পুলিশ হয়ে দাদাগিরি করায় খেসারত দিতে হয়েছে ভারতী ঘোষকে। আরও দিতে হবে তাঁকে।

সোমবার ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রে প্রচারে যান ভারতী ঘোষ। মানুষ ভূঁইঞার গড় সবং -এ দাঁড়িয়ে ভারতী ঘোষের দাবি,  ”মানস ভুঁইঞা হেরে গিয়েছেন তাই তিনি আর গুরুত্বপূর্ণ নন।’

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment