দেশ 

‘ভবিষ্যতের ভূত “ সিনেমা প্রদর্শনে আপত্তি নেই’, হলগুলিকে চিঠি লিখে জানাতে হবে রাজ্যকেই নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : সোমবার বিচারপতি ডিওয়াই চন্দ্রচূড় জানিয়েছেন, রাজ্যসরকারকে চিঠি লিখে রাজ্যের সব হলকে জানাতে হবে যে এই ছবি প্রদর্শনের ক্ষেত্রে কোনও আপত্তি নেই। আগেই হলগুলিতে পর্যাপ্ত ও প্রয়োজনীয় নিরাপত্তার ব্যবস্থা করার জন্য রাজ্য সরকারকে নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। ‘ভবিষ্যতের ভূত’ সিনেমার প্রদর্শনে কোনও নিষেধাজ্ঞা নেই, হলগুলিকে এ কথা বলবে রাজ্যই। সোমবার এমনই নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট।

ছবির প্রদর্শন শুরু করতে হবে অবিলম্বে, ১৬ মার্চ ‘ভবিষ্যতের ভূত’ মামলায় এই নির্দেশ দিয়েছিল দেশের সর্বোচ্চ আদালত। কিন্তু তারপরে কেটে গিয়েছে ৯টা দিন। তবু কলকাতার কোনও হলেই শুরু হয়নি এ ছবির প্রদর্শন। ফলে আবারও আদালতের শরণাপন্ন হয় সিনেমাটির প্রযোজনা সংস্থা। এরপরেই সোমবার এই রায় দিল আদালত।

সোমবার বিচারপতি ডিওয়াই চন্দ্রচূড় জানিয়েছেন, রাজ্য পুলিশের ডিজি এবং স্বরাষ্ট্র দফতরের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারিকে চিঠি লিখে রাজ্যের সব হলকে জানাতে হবে যে এই ছবি প্রদর্শনের ক্ষেত্রে কোনও আপত্তি নেই। এর আগেই হলগুলিতে পর্যাপ্ত ও প্রয়োজনীয় নিরাপত্তার ব্যবস্থা করার জন্য রাজ্য সরকারকে নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। এই মামলার শুনানিতে আদালত এ দিন বলে, চিন্তার স্বাধীনতায় বাধা না থাকাই শ্রেয়।

প্রসঙ্গত,  হঠাৎ করেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল পরিচালক অনীক দত্তর ছবি ‘ভবিষ্যতের ভূতে’-র প্রদর্শন। ফেব্রুয়ারীতে মুক্তি পায় এই সিনেমা। মুক্তির একদিন পরই বিভিন্ন হলে সিনেমাটির প্রদর্শন বন্ধ করে দেওয়ার অভিযোগ আসতে থাকে। রাজ্যের অধিকাংশ মাল্টিপ্লেক্স ও সিঙ্গেল স্ক্রিন থেকে উধাও হয়ে গিয়েছিল ছবিটি। দর্শকরা ছবি দেখতে গিয়ে শোনেন, “ছবি উঠে গেছে”।

এরপর বহু প্রতিবাদ, মিটিং, মিছিল, অবশেষে আদালতে যায় টিম অনীক দত্ত। কিন্তু, উপরমহলের থেকে কোনও উত্তর আসেনি। এমনকি শীর্ষ আদালতের নির্দেশের পরও হলগুলোতে ছবিটা দেখানো শুরু হচ্ছিল না। ফলত আবারও আদালতের দারস্থ হয় টিম অনীক দত্ত।

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment