দেশ 

চৌকিদার চোর হ্যায় রাহুলের শ্লোগান মোকাবিলায় মোদীর বার্তা “ সেনার জওয়ানও দেশের চৌকিদার। গালিকে আমি গর্বের সঙ্গে গয়না বানাই “

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলার জনরব ডেস্ক : চৌকিদার নামটির সঙ্গে চোর শব্দ এতটাই সমর্থক করে ফেলেছেন রাহুল গান্ধী যে আজ লোকসভা ভোটের্ আগে খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চৌকিদার শব্দটিকে নিয়ে গবেষণা করতে হচ্ছে । এখনও প্রতিদিন নিয়ম করে রাহুল গান্ধী প্রতিটি সভাতে প্রশ্ন তুলছেন চৌকিদার ? উত্তর আসছে চোর হ্যায় । লোকসভা নির্বাচনে এটাই যে কংগ্রেসের প্রচারের অস্ত্র হতে চলেছে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না । তাই এর মোকাবিলা করার জন্য ২৫ লক্ষ তথাকথিত চৌকিদারের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে অংশ নিতে হয়েছে প্রধানমন্ত্রীকে ।

সেখানে তিনি প্রশ্ন উত্তর করার সময় চৌকিদার শব্দটিকে দেশভক্তির সঙ্গে জুড়ে দিতে চান । ‘চৌকিদার চোর হ্যায়’ স্লোগানের মোকাবিলা করতেই যে মোদীর নয়া অভিযান,তা  স্পষ্ট হয়ে গেল ।

এ সংক্রান্ত প্রশ্নের উত্তরে মোদী বলেন, ‘‘কিছু লোক নিজের স্বার্থের জন্য কয়েক মাস ধরে কিছু না বুঝেই গালি দিচ্ছেন। চৌকিদারকে চোর বলছেন। এর জন্য আমি ক্ষমা চাইছি। চৌকিদার শব্দ দেশভক্তির সঙ্গে যুক্ত। সেনার জওয়ানও দেশের চৌকিদার। গালিকে আমি গর্বের সঙ্গে গয়না বানাই।’’

নির্বাচন কমিশনের নির্দেশকে অগ্রাহ্য করে ভোট প্রচারে পুরোমাত্রায় পুলওয়ামা আর বায়ুসেনার সার্জিকাল স্ট্রাইক টেনে আনলেন মোদী। তিনি বলেন, ‘‘পাকিস্তানে বোমা পড়লে এখানে কিছু লোকের কষ্ট হয়। ওখানে হামলা হলে এখানে কয়েকজনের হজম হয় না।’’ এর পরেই বললেন, ‘‘কামদারদের প্রতি ঘৃণা নামদারদের স্বভাব। আমাকে সরাসরি গালি দিতে পারেন না বলে চৌকিদারদের অপমান করছেন। নানা ছুতোয় আবার করবেন।’’

 

 


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সম্পর্কিত নিবন্ধ

Leave a Comment